শিরোনাম
প্রকাশ : ২৫ জুন, ২০১৯ ১৩:০২

'টার্গেট মিস করিনি', জোরাল দাবি ভারতীয় বিমানবাহিনীর পাইলটের

অনলাইন ডেস্ক

'টার্গেট মিস করিনি', জোরাল দাবি ভারতীয় বিমানবাহিনীর পাইলটের

বালাকোটের জঙ্গি ঘাঁটিতে ভারতীয় বিমানবাহিনীর হামলা শতভাগ সফল বলে দাবি করা হয়েছে। ওই অপারেশনে থাকা বিমানবাহিনীর দুই স্কোয়াড্রন লিডার জানিয়েছেন, 'আমরা টার্গেট মিস করিনি।'

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দুই চালকের দাবি, অভিযানে তাদের দু'ধরনের ইসরায়েলি অস্ত্র প্রয়োগ করার কথা ছিল। এক, স্পাইস ২০০০ (স্যাটেলাইটের মাধ্যমে চালিত এক ধরনের বোমা) এবং দুই, ক্রিস্টাল মেজ (যা লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত করার পাশাপাশি ধ্বংসের ছবিও প্রমাণ হিসাবে তুলে রাখে)।

প্রথম অস্ত্রটি অর্থাৎ স্পাইস ২০০০ তারা প্রয়োগ করলেও, আকাশ মেঘাচ্ছন্ন থাকায় দ্বিতীয়টি প্রয়োগ করতে পারেননি। তবে প্রথম অস্ত্রটি যে সঠিক টার্গেটে আঘাত করেছিল, তা নিয়ে তারা নিশ্চিত। এক বিমানচালক জানিয়েছেন, 'আমাদের একেবারেই সংশয় নেই যে স্পাইস ২০০০ নিজের টার্গেটেই আঘাত করেছে। কারণ, সেটি কখনোই লক্ষ্যভ্রষ্ট হয় না।' 

আড়াই ঘণ্টা ছিল অভিযানের মেয়াদ। যুদ্ধবিমান মিরাজ ২০০০ এর পাইলট তথা স্কোয়াড্রন লিডার সোজাসাপ্টাই জানিয়েছেন, এমন চ্যালেঞ্জিং একটা কাজের জন্য তারা বেশ টেনশনে ছিলেন। এবং তা কাটাতে প্রচুর ধূমপান করেছিলেন।

গত ১৪ ফেব্রুয়ারি জম্মু-কাশ্মীরের পুলওয়ামায় ভয়াবহ জঙ্গি হামলার প্রত্যুত্তরে ফেব্রুয়ারির ২৬ তারিখ পাকিস্তান অধ্যুষিত কাশ্মীরের বালাকোটে হামলা চালায় ভারতীয় বিমানবাহিনী। ভোররাতে ওই এলাকার জঙ্গিঘাঁটিগুলোর উপর আঘাত হানে ১২টি মিরাজ ২০০০ বোমারু বিমান। তাতে জইশ-ই-মোহাম্মদের বেশ কিছু ঘাঁটি নষ্ট এবং জঙ্গিদের প্রাণহানি হয়েছে বলে দাবি করা হয় বিমানবাহিনীর পক্ষ থেকে।

যদিও বিমানবাহিনীর এই অপারেশন আদৌ কতটা সফল হয়েছিল, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠে যায় নানা স্তরেই। নির্বাচনের আগে এই প্রশ্নে সরকারকে রীতিমত কোণঠাসা করা হতে থাকে। তবে সেনাপ্রধান, বিমানবাহিনী প্রধান, প্রতিরক্ষামন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী-সকলেই একযোগে এর সাফল্য দাবি করে এসেছেন। এবার সাফল্য নিয়ে ওই অপারেশনে থাকা দুই স্কোয়াড্রন লিডারের দাবি সমালোচকদের মুখের উপর জবাব দিল বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

বিডি প্রতিদিন/২৫ জুন, ২০১৯/আরাফাত


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর