Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ১৫ জুন, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ জুন, ২০১৯ ২৩:৫২

চিকিৎসক ধর্মঘটে ভারতে স্বাস্থ্যসেবায় অচলাবস্থা

প্রতিদিন ডেস্ক

চিকিৎসক ধর্মঘটে ভারতে স্বাস্থ্যসেবায় অচলাবস্থা

রোগী মারা যাওয়ায় ডাক্তারকে পেটানোর ঘটনাকে কেন্দ্র করে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ, নয়াদিল্লি, মুম্বাই ও হায়দরাবাদসহ বিভিন্ন স্থানে চার দিন ধরে চিকিৎসক ধর্মঘট চলছে। এরই মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের একটি সরকারি হাসপাতালের ৮০ জন চিকিৎসক একযোগে পদত্যাগ করেছেন। সূত্র : ভারতীয় গণমাধ্যম। পশ্চিমবঙ্গের চিকিৎসকদের কর্মবিরতি ও প্রতিবাদকে সমর্থন জানিয়ে নয়াদিল্লি, মুম্বাই ও হায়দরাবাদের চিকিৎসকরাও কর্মবিরতির ডাক দিয়েছেন। গত মঙ্গলবার থেকে পশ্চিমবঙ্গের চিকিৎসকরা ধর্মঘটে যোগ দিয়েছেন। চতুর্থ দিনের মতো গতকালও তারা ধর্মঘট পালন করেন।

জানা গেছে, মঙ্গলবার হাসপাতালে মারা যাওয়া এক রোগীর আত্মীয়রা কলকাতার এনআরএস মেডিকেল কলেজ হসপিটালের দুই জুনিয়র চিকিৎসককে লাঞ্ছিত করেন। এর প্রতিবাদে ধর্মঘট ডাকা হয়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হুঁশিয়ারিকে না মেনে চিকিৎসকদের তরফ থেকে জানিয়ে  দেওয়া হয়েছে যে, যতক্ষণ পর্যন্ত তারা নিরাপত্তা না পাবেন- ততক্ষণ তারা কাজে ফিরবেন না। এরপর শুধু এনআরএস নয় রাজ্যের সব হাসপাতালেই বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। এরই জের ধরে কলকাতার আরজিকর মেডিকেল কলেজ সরকারি হাসপাতালের ৮০ জন চিকিৎসক একযোগে ইস্তফা দিয়েছেন। এর মধ্যে অনেক সিনিয়র চিকিৎসকও রয়েছেন। চিকিৎসকরা বলছেন, প্রথমত মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে হবে। দ্বিতীয়ত রাজ্যের হাসপাতালগুলোতে যে পরিস্থিতি চলছে তা পুরোপুরি প্রশাসনিক ব্যর্থতা। এর দায় রাজ্য সরকার এবং মুখ্যমন্ত্রী এড়াতে পারেন না। এই দায় তাকেই নিতে হবে। এদিকে নয়াদিল্লির অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অফ মেডিকেল সায়েন্সের সব পরিসেবা বন্ধের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। এনআরএস-এর জুনিয়র ডাক্তারদের আন্দোলনকে সমর্থন করতে কর্মবিরতিতে যোগ দিয়েছেন উত্তরপ্রদেশ, অন্ধ্রপ্রদেশ,  তেলেঙ্গানা, মহারাষ্ট্রসহ একাধিক হাসপাতালের চিকিৎসকরা। দিল্লির অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট মেডিকেল সায়েন্সেস (এইমস) এবং মুম্বাইয়ের জে জে হসপিটালসহ বেশ কিছু হসপিটালের চিকিৎসকরা কর্মবিরতি ঘোষণা করছেন। ফলে এসব হাসপাতালে আউটডোর এবং জরুরি পরিসেবা বন্ধ রয়েছে। সব মিলিয়ে এনআরএস আন্দোলনের ঢেউ ছড়িয়ে পড়েছে সারা  দেশেই।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর