শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৮ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ মে, ২০২১ ২৩:০৩

নারী উদ্যোক্তাদের রক্ষায় চাই প্যাকেজ উদ্যোগ

-স্বর্ণলতা রায়

নারী উদ্যোক্তাদের রক্ষায় চাই প্যাকেজ উদ্যোগ
Google News

করোনা পরিস্থিতিতে দেশে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন নারী উদ্যোক্তারা। অনেকে ইতিমধ্যে পুঁজি হারিয়ে বেকার হয়ে পড়েছেন। যারা এখনো টিকে আছেন, তারাও যুদ্ধ করছেন অস্তিত্ব ঠিকিয়ে রাখতে। এ অবস্থায় আগামী বাজেটে নারী উদ্যোক্তাদের রক্ষায় বিশেষ বরাদ্দ রাখা প্রয়োজন বলে মনে করেন সিলেট উইমেন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি স্বর্ণলতা রায়। স্বর্ণলতার দাবি, করোনার কারণে বেশির ভাগ নারী উদ্যোক্তা তাদের পুঁজি হারিয়ে ফেলেছেন। যাদের ‘আউটলেট’ ছিল তারা বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। যাদের ব্যবসা অনলাইনে ছিল, তারা এখনো কোনোমতে টিকে আছেন। এ অবস্থায় আগামী বাজেট হবে নারীবান্ধব- এমনটাই মনে করছেন স্বর্ণলতা। তিনি মনে করেন, দেশে নারীর ক্ষমতায়নের কারণে অনেক উদ্যোক্তা তৈরি হয়েছে। নারীরা স্বনির্ভরতার দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। আগামী বাজেটে নারী উদ্যোক্তাদের উন্নয়নে বিশেষ প্যাকেজের আওতায় বিশেষ বরাদ্দ রাখা গেলে করোনার এই কঠিন সময়ে নারী উদ্যোক্তাদের রক্ষা করা যাবে। এ জন্য নারী উদ্যোক্তাদের সহজ শর্তে, স্বল্প সুদে দীর্ঘমেয়াদি ঋণ দেওয়া, ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত আয় করমুক্ত রাখা ও আগামী দুই বছর তাদের ভ্যাটের আওতার বাইরে রাখার সুপারিশ স্বর্ণলতা রায়ের। সিলেট উইমেন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি স্বর্ণলতা রায় বলেন, দেশে এখনো নারী উদ্যোক্তাদের জন্য যথোপযুক্ত প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা নেই, যে কারণে উদ্যোক্তারা শ্রমের তুলনায় সফলতা কম পাচ্ছেন। সরকারের এটুআই প্রকল্পের অধীনে চেম্বারের সহযোগিতায় সারা দেশে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা প্রয়োজন। এতে নারী উদ্যোক্তাদের জন্য ‘অনলাইন প্ল্যাটফরম’ আরও বিস্তৃত হবে। অর্থনৈতিকভাবেও তারা হবেন লাভবান। উৎপাদিত পণ্যের নতুন বাজারও তৈরি হবে। স্বর্ণলতা রায় বলেন, দেশে এখন অসংখ্য নারী উদ্যোক্তা অনলাইনে ব্যবসা করছেন। কিন্তু ব্যবসায়ী হিসেবে তারা স্বীকৃতি পাচ্ছেন না। তারা ট্রেড লাইসেন্স পাওয়ার অধিকার থেকে বঞ্চিত। ব্যাংক ঋণও পান না। অথচ অনলাইনে যারা ব্যবসা করছেন তারা দেশের অভ্যন্তর ছাড়া বিদেশেও পণ্য পাঠাচ্ছেন। এসব উদ্যোক্তাকে ট্রেড লাইসেন্স, ব্যাংক ঋণ ও এক্সপোর্ট লাইসেন্সের আওতায় আনা গেলে দেশ লাভবান হবে, দেশের অর্থনীতি লাভবান হবে। নারী উদ্যোক্তাদের স্বাস্থ্যসেবা খাতে বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া প্রয়োজন। এ জন্য স্বাস্থ্যবীমা চালুর প্রয়োজন রয়েছে বলেও মনে করেন তিনি। এসব উদ্যোগ বাস্তবায়নে আগামী বাজেটে নারী উদ্যোক্তাদের জন্য একটি বিশেষ প্যাকেজ উন্নয়ন ঘোষণা করে বরাদ্দ দেওয়ার দাবি জানান সিলেট উইমেন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি স্বর্ণলতা রায়।

এই বিভাগের আরও খবর