শনিবার, ২১ মে, ২০২২ ০০:০০ টা

ঢাকায় মৎস্যজীবী লীগের কাজ কী

তাজরীন ফ্যাশনের মালিক দেলোয়ার উত্তরের সভাপতি বিএনপির এক নেতা উত্তরের সাধারণ সম্পাদক

রফিকুল ইসলাম রনি

রাজধানীতে পেশাদার জেলে না থাকলেও রয়েছে মৎস্যজীবী লীগের কমিটি। মাছ ব্যবসা বা পেশার সঙ্গে ন্যূনতম সম্পর্ক না থাকলেও গার্মেন্ট ব্যবসায়ীরা হচ্ছেন মৎস্যজীবী লীগের নেতা। ঢাকঢোল পিটিয়ে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণের সম্মেলন করার পর বিতর্কিতরা নেতা হওয়ায় ঢাকায় মৎস্যজীবী লীগের কাজ কী তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে ভিতরে-বাইরে। অন্যদিকে মৎস্যজীবীরা নেতা না হয়ে অন্যরা নেতৃত্বে আসায় সমালোচনার ঝড় চলছে।

গত ১১ মে ঢাকা মহানগর উত্তর মৎস্যজীবী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এতে দেলোয়ার হোসেনকে সভাপতি ও আবদুল জলিলকে সাধারণ সম্পাদক মনোনীত করা হয়। সভাপতি দেলোয়ার হোসেন সাভারের তাজরীন ফ্যাশনসে অগ্নিকাণ্ডে শতাধিক শ্রমিকের মৃত্যুর ঘটনায় মামলার প্রধান আসামি। বর্তমানে মামলা চলমান থাকার পরও তাকে সভাপতি করা হয়েছে। ২০১২ সালের ২৪ নভেম্বর ঢাকার সাভারের আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুরে তাজরীন ফ্যাশনসে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ১১১ জনের মৃত্যু হয়।

এ নিয়ে ক্ষোভ তৈরি হয়েছে আওয়ামী লীগের এ সহযোগী সংগঠনের নেতাদের মধ্যে। সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে আবদুল জলিলকে। তিনি পল্লবী থানা বিএনপির সহসম্পাদক ছিলেন। আওয়ামী লীগের শত শত নেতা-কর্মী থাকার পরও কেন বিএনপির লোককে নেতা বানাতে হবে তা নিয়ে সংগঠনের ভিতরে চলছে নানা রকম সমীকরণ। অভিযোগ উঠেছে- বড় ধরনের আর্থিক লেনদেনের মাধ্যমে কমিটিতে পদ পেয়েছেন বিতর্কিতরা। ১২ মে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ মৎস্যজীবী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে সভাপতি প্রার্থী হিসেবে মূল আলোচনায় আছেন শাহজাহান হাওলাদার। পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার তুষখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাহজাহান হাওলাদার এর আগে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক ছিলেন। শাহজাহান হাওলাদার মূলত ঢাকায় থাকেন না। তিনি মাঝে-মধ্যে ঢাকায় আসেন। জানা গেছে, ওই সম্মেলনে ৮-১০ জন সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী ছিল। তবে সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে সুরাহা না হওয়ায় ওই দিন কমিটি ঘোষণা করা সম্ভব হয়নি। পরে সাত দিনের মধ্যে কমিটি ঘোষণার নির্দেশনা দেওয়া হয়। তবে নির্ধারিত সময় পেরিয়ে গেলেও এখনো কমিটি হয়নি।

মঠবাড়িয়ার তুষখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে থেকেও ঢাকার গুরুত্বপূর্ণ এই ইউনিটে সময় দেওয়া কঠিন কি না জানতে চাইলে শাহজাহান হাওলাদার সাংবাদিকদের বলেন, ২০০৭ সাল থেকে তো করে আসছি। দক্ষিণে যদি মনে করি ১ হাজার লোকের দরকার ফোন দিলেই চলে আসবে ইনশাআল্লাহ। মঠবাড়িয়া নাকি ঢাকায় কোথায় থাকেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, ঢাকায় বঙ্গবাজারে আমার দোকান আছে। বাসাবোতে বাসা আছে। দেলোয়ার হোসেন ও আবদুল জলিল এর আগে ঢাকা উত্তর মৎস্যজীবী লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক ছিলেন। তারা দায়িত্বে থাকাকালীন সংগঠনের গঠনতন্ত্রবহির্ভূতভাবে তিনটি থানার আহ্বায়ক কমিটি দেয়। টাকার বিনিময়ে ওই কমিটি দেওয়া হয় লিখিত অভিযোগ দাখিল করা কেন্দ্র বরাবর। তাদের এই কাজকে সাংগঠনিক অপরিপক্বতা হিসেবে আখ্যায়িত করে সংগঠনেরই ভিতরেই ব্যাপক সমালোচনা হয়। পরে কেন্দ্রীয় নেতারা এ বিষয়ে সতর্ক করলে তারা আহ্বায়ক কমিটি দেওয়া বন্ধ রাখে। জানা গেছে, ২০১৯ সালে আওয়ামী লীগের ২১তম জাতীয় সম্মেলনে ‘বাংলাদেশ আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগকে’ সহযোগী সংগঠন হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া হয়। মৎস্যজীবী পেশার সঙ্গে জড়িত পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীকে মূল স্রোতে আনতে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মৎস্যজীবী লীগকে সহযোগী সংগঠন হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছেন। মৎস্যজীবীদের সংগঠিত করা এবং তাদের জন্য স্বীকৃতি দেওয়া হলেও ঢাকায় এই সংগঠনের নেতৃত্ব নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। এই পেশার সঙ্গে সম্পৃক্তই নন এমন ব্যক্তিরা আসছেন শীর্ষ পদে। আলোচিত মামলার আসামিরা বাগিয়ে নিচ্ছেন পদ। ঢাকার বাইরের আওয়ামী লীগ নেতা ও জনপ্রতিনিধিরা পালন করছেন গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব। এ বিষয়ে জানতে চাইলে মৎস্যজীবী লীগের কার্যকরী সভাপতি সাইফুল আলম মানিক বলেন, সংগঠনের গঠনতন্ত্র মেনেই কমিটি করা হয়। মামলা তো একটা লোকের বিরুদ্ধে থাকতেই পারে। তাছাড়া দুর্ঘটনার মামলা তো ভিন্ন বিষয়।

সর্বশেষ খবর