শিরোনাম
প্রকাশ : ২১ জানুয়ারি, ২০২১ ০৮:৪১
আপডেট : ২১ জানুয়ারি, ২০২১ ১২:৩৮
প্রিন্ট করুন printer

নিজের পছন্দে বিয়ে হলে বাড়িতে স্ত্রীর সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত: সমীক্ষা

অনলাইন ডেস্ক

নিজের পছন্দে বিয়ে হলে বাড়িতে স্ত্রীর সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত: সমীক্ষা
ফাইল ছবি

যুগ বদলেছে, সংসারে ক্ষীণ হয়ে যাচ্ছে পুরুষদের দাপট। সাম্প্রতিককালের এক সমীক্ষার ফলাফল যেন সেই কথাই বলছে। একটা সময় ছিল যখন পরিবারে নারীদের কোনও মন্তব্য বা কোনও সিদ্ধান্তকে দাম দেওয়া হত না। সর্বক্ষেত্রে পুরুষদের সিদ্ধান্তই পেত প্রথম অগ্রাধিকার। কিন্তু বর্তমানে সেই চিত্র পাল্টেছে।

কেন এমন বদল? উত্তর খুঁজতে জিজ্ঞাসাবাদের মাধ্যমে শুরু হয় সমীক্ষা। প্রায় ২১,০০০ বিবাহিত নারী এবং তাদের স্বামীদের নিয়ে সমীক্ষা চালানো হয়।  

২০০৪ -২০০৫ সাল থেকে ২০১১ ও ২০১২ সালের মধ্যে যাদের বিয়ে হয়েছে তাদের নিয়েই সমীক্ষা চালানো হয়। জিজ্ঞাসা করা হয়- কার কথা বেশি মানা হয় পরিবারে? দেখা গেছে, বর্তমানে বাড়িতে নারীদের দাপটের কথাই বেশি উল্লেখ করেছে সদ্যবিবাহিতরা। যার তুলনায় পুরানো দম্পতিদের মধ্যে পুরুষদের  দাপটই বেশি। 

কেন এমনটা ঘটছে? জানা যায়, যাদের বাড়িতে স্ত্রীদের সিদ্ধান্তই শেষ কথা হয়ে দাঁড়াচ্ছে, সই সব বাড়িতে নারীরা বেছে নিয়েছিলেন নিজেদের জীবনসঙ্গীকে। কিন্তু যারা পরিবারের সিদ্ধান্তকে নিজের সিদ্ধান্ত করেছিল, তাদের বাড়িতে পুরুষদের কথার দামই সর্বোচ্চ।  

পাশাপাশি স্বামীর সঙ্গে বয়সের পার্থক্য দশ বছরের হলে সমস্যা তীব্র। যেমন- স্ত্রীর বয়স যদি ২৫ হয় সেখানে স্বামীর বয়স যদি ৩২ হয়। সেক্ষেত্রেও পুরুষদের দাপট থাকবে। আবার স্ত্রীয়ের বয়স যদি ২২ হয় আর স্বামীর বয়স ২৯। সেক্ষেত্রে স্ত্রীর সিদ্ধান্তকে দাম দেওয়া হয়ে থাকে। বয়সের পার্থক্য বড় মূল্য রাখে বৈবাহিক জীবনে।


বিডি-প্রতিদিন/সিফাত আব্দুল্লাহ


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর