শিরোনাম
প্রকাশ : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৪:২২
আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৬:৫৭
প্রিন্ট করুন printer

নিজে থেকে ফোন করে কখনওই মেয়ের খোঁজখবর নিত না তামিমা: রাকিবের মা

অনলাইন ডেস্ক

নিজে থেকে ফোন করে কখনওই মেয়ের খোঁজখবর নিত না তামিমা: রাকিবের মা

বর্তমানে ক্রিকেটার নাসির ও বিমানবালা তামিমা সুলতানার বিয়ে চলছে তোলপাড়। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চলছে নানা ধরনের আলোচনা-সমালোচনা। অভিযোগ উঠেছে, স্বামী রাকিব হাসানকে তালাক না দিয়েই নাসিরকে বিয়ে করেছেন তামিমা।

এদিকে বিষয়টি নিয়ে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন রাকিবের মা সালমা সুলতানা। তিনি বলেন, ১০-১২ বছর আগে রাকিবের সঙ্গে প্রেম করে বিয়ে করায় আমরা প্রথমে তামিমাকে মেনে নেইনি।

রাকিবের বাড়ি ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলার ভৈরবপাশা ইউনিয়নে। নাসির-তামমিরা বিয়ের বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেই জানতে পারেন তিনি। এরপর তিনি রাকিব অভিযোগ করেন, বিবাহবিচ্ছেদ না করেই নাসিরকে বিয়ে করেছেন তামিমা।

এদিকে, রাকিব-তামিমার মেয়ে রাফিয়া হাসান তুবা টেলিভিশনে মায়ের বিয়ে দেখেছে গণমাধ্যমে। এরপর দাদির গলা জড়িয়ে ধরে অঝোরে কেঁদেছে।

তামিমার এই বিয়েতে অবাক হয়েছেন রাকিবের মা (তুবার দাদি)। তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, রাকিবের বউ থাকা অবস্থায় তাম্মি (তামিমা) যে আবার বিয়ে বসবে সেটা আমাদের কল্পনাতেও ছিল না। তুবাই প্রথম টেলিভিশনে দেখে আমার কাছে এসে গলা জড়িয়ে ধরে কান্নায় ভেঙে পড়ে আর বলে যে মা আবার বিয়ে করেছে।

তিনি বলেন, প্রথমে আমরা তাকে মেনে নেইনি। কিন্তু তুবার জন্ম হলে সম্পর্ক স্বাভাবিক হয়। শুরু থেকেই তাম্মির আচরণ কিংবা স্বভাব কোনওটাই ভালো ছিল না। তবুও আমরা ছেলে আর নাতনির মুখ চেয়ে কখনও কিছু বলিনি।

তুবার দাদি বলেন, গত ২৬ আগস্ট ছিল তুবার জন্মদিন। সেদিন আমরা কেক কেটেছি, তুবা অনুষ্ঠানে নাচ করেছে। ভিডিও কলে তাম্মিকে সব দেখিয়েছি আমরা। সেও আনন্দ পাওয়ার অনেক ভান করেছে সেদিন। কিন্তু তখনও ঘুর্ণাক্ষরেও বুঝতে পারিনি যে সে এরকম একটা কিছু করবে। তাম্মি নিজে থেকে ফোন করে কখনওই তুবার কোনও খোঁজখবর নিত না। তুবা মাকে ফোন করে কথা বলতে চাইলেও নানা ব্যস্ততার অজুহাত দেখিয়ে লাইন কেটে দিতেন তামিমা।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর