শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ১৫ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ মার্চ, ২০২১ ২৩:৪২

করোনায় স্বপ্ন ভন্ডুল

৪২ বছর পর কফিনবন্দী তাহের স্ত্রী-সন্তানের কাছে ফিরছেন

লাবলু আনসার, যুুক্তরাষ্ট্র

Google News

৪২ বছর পর বাংলাদেশের লক্ষ্মীপুর জেলার রায়পুর উপজেলার সন্তান তাহের আহমেদ (৬৭) স্ত্রী-সন্তানের কাছে ফিরছেন কফিনে বন্দী হয়ে। করোনায় আক্রান্ত হয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ব্রঙ্কসের মন্টিফিউর হাসপাতালে ৮ মার্চ ইন্তেকাল করেন তাহের। এ তথ্য জানিয়ে কমিউনিটি অ্যাক্টিভিস্ট মাজেদা এ উদ্দিন জানান। অভিবাসনের মর্যাদা পাননি তাহের। দিনাতিপাত করতেন নিউইয়র্ক সিটির ব্রঙ্কসে পার্কচেস্টার সাবওয়ে সংলগ্ন এলাকায় বই-পত্র বিক্রি করে। কাছেই ১৯৩৯ এলিস এভিনিউতে প্রবাসী বাবুল নবীর বাসার বেসমেন্টে বাস করতেন তিনি। বাবুল নবীও করোনায় আক্রান্ত হয়ে ২৪ ফেব্রুয়ারি একই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। পারিবারিক সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে মাজেদা আরও জানান, একমাত্র পুত্রসন্তানের মুখ তিনি দেখেননি। পুত্র যখন তার স্ত্রীর গর্ভে, তখনই স্বপ্নের দেশ আমেরিকায় এসেছিলেন তাহের আহমেদ। এরপর দীর্ঘ ৪২ বছরেও অভিবাসনের মর্যাদা না পাওয়ায় স্ত্রী-সন্তানের কাছে যাওয়ার সৌভাগ্য হয়নি তার। সর্বশেষ জো বাইডেনের অভিবাসন ঢেলে সাজানোর প্রস্তাব কংগ্রেসে বিবেচনাধীন থাকায় স্বস্তিবোধ করছিলেন তাহের আহমেদ। ফেসটাইমে স্ত্রী-পুত্রকে সে আশ্বাসও দিয়েছিলেন তাহের আহমেদ।

 কিন্তু করোনায় তার সবকিছু তছনছ করে দিল।

তাহেরের লাশ বেওয়ারিশ হিসেবে ওয়েস্টচেস্টার মর্গে নেওয়া হয়েছিল। মাজেদা উদ্দিনের তদবিরে লাশ আনা হয় ব্রঙ্কসে গানহিল মর্গে। আনুষ্ঠানিকতা শেষে ১৩ মার্চ ব্রঙ্কসের পার্কচেস্টার ইসলামিক সেন্টারে বাদজোহর জানাজার পর সন্ধ্যায় আমিরাতের ফ্লাইটে বাংলাদেশে রওয়ানা দেয় তাহেরের লাশ। নিউইয়র্কে বসবাসরত রায়পুরের লোকজনের আর্থিক সহায়তায় তাহেরের ফিউনারেল ও বিমানের খরচ গঠিত হয়।

এই বিভাগের আরও খবর