শিরোনাম
প্রকাশ : ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০২:৩৪

সুপার ওভারের নাটকীয়তায় পাঞ্জাবকে হারাল দিল্লি

অনলাইন ডেস্ক

সুপার ওভারের নাটকীয়তায় পাঞ্জাবকে হারাল দিল্লি

দুবাইয়ের ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আইপিএলের দ্বিতীয় ম্যাচে সুপার ওভারের নাটকীয়তায় জয় পেয়েছে দিল্লি ক্যাপিটালস।

রবিবার কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের বিরুদ্ধে আগে ব্যাটিং করে মার্কাস স্টোইনিজের ভরে ১৫৭ রান করে দিল্লি। জয়ের লড়াইয়ে পাঞ্জাবও সংগ্রহ করে ১৫৭ রান। ফলে খেলা গড়াল সুপার ওভারে।

শ্বাসরূদ্ধকর ম্যাচ শেষে সুপার ওভারে আগে ব্যাট করতে নেমে কেবল ২ রান সংগ্রহ করে পাঞ্জাব। দুই রান করে দ্বিতীয় বলে আউট হন রাহুল। তৃতীয় বলে নিকোলাস পুরান আউট হলে তারা আর ব্যাট করতে পারে না। ৮৯ রান করা মায়াঙ্ককে পাঠাননি পাঞ্জাব; দিল্লির হয়ে বল করতে আসেন কাগিসো রাবাদা।

জবাব দিতে নেমে মোহাম্মদ শামির প্রথম বলে কোনো রান নেননি রিশাভ পান্ত। পরের বলে দিলেন ওয়াইড। পরের বলে ২ রান নিয়ে নিলে সহজেই জয় পায় দিল্লি। 

এর আগে টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন পাঞ্জাব অধিনায়ক লোকেশ রাহুল। ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই পরপর তিন উইকেট পড়ে যায় দিল্লির। ধাওয়ান শূন্য রানে রানআউট হয়ে প্যাভিলিয়নে ফেরেন। পৃথ্বি শ (‌৫) এবং শিমরন হেটমায়ার (‌৭) শিকার হন মোহাম্মদ শামির।

এরপর অধিনায়ক শ্রেয়াস আয়ার এবং রিশাভ পান্ত পাল্টা প্রতিরোধ গড়ে তোলেন। শ্রেয়াস করেন ৩৯ রান। অন্যদিকে, রিশভের সংগ্রহ ৩১ রান। তবে শেষদিকে পালটা মারে দিল্লির রানকে দ্রুত গতিতে এগিয়ে নিয়ে মার্কাস স্টোইনিজ। রানআউট হওয়ার আগে ২১ বলে ৫৩ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলে দিল্লির রান নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৫৭ রানে পৌঁছায়।

পাঞ্জাব বোলারদের মধ্যে মোহাম্মদ শামি ১৫ রান দিয়ে তিন উইকেট নেন। দু’‌টি উইকেট পেয়েছেন শেলডন কটরেল এবং একটি পেয়েছেন রবি বিষনোই।

১৫৮ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে পাঁচ ওভারে ২২ রানের মধ্যেই চার উইকেট হারায় পাঞ্জাব। দিল্লির বোলিং দাপটে ব্যর্থ হন করুন নায়ার (‌১)‌, নিকোলাস পুরান (০‌),‌ গ্লেন ম্যাক্সওয়েল (‌১)‌, সরফরাজ খান (‌১২)‌ প্রত্যেকেই।

তবে অধিনায়ক লোকেশ রাহুল করেন ২১ রান। দশ ওভারের পর সবাই যখন ধরে নিয়েছে ম্যাচ দিল্লির দখলে, তখনই জ্বলে ওঠেন মায়াঙ্ক আগরওয়াল। লোয়ার মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানদের নিয়েই পাল্টা লড়াই শুরু করেন তিনি।

৪৫ বলে নিজের অর্ধশতরান পূর্ণ করার পর খোলস ছেড়ে বের হন। মোহিত শর্মার ১৮তম ওভারে ১৭ রান নেন মায়াঙ্ক। 

শেষ ওভারে জয়ের জন্য দরকার ছিল ১৩ রানের। প্রথম তিন বলে চলে আসে ১২ রান। পরের বলে কোনও রান হয় না। তখনও দরকার ছিল ২ বলে ১ রানের; কিন্তু পরপর দুই বলে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা মায়াঙ্ক এবং ক্রিস জর্ডনকে ফিরিয়ে দিল্লিকে ম্যাচে ফেরান স্টোইনিজ। শেষ পর্যন্ত ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে। আর সুপার ওভারে সহজ জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে দিল্লি।

বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর