Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২১:৩৩

ইবিতে এশীয় প্রশান্ত মহাসাগরীয় আন্তর্জাতিক জোট সম্মেলন শুরু

পরমতসহিঞ্চুতা কমাতে পারে সামাজিক অস্থিরতা

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি

পরমতসহিঞ্চুতা কমাতে পারে সামাজিক অস্থিরতা

সামাজিক অস্থিরতা হলো সমাজে একদল লোকের উপস্থিতি যারা বিদ্যমান ইস্যুতে সন্তুষ্ট নয়। এ সমস্যা বিশ্বজুড়ে, বিশেষত দক্ষিণ এশিয়ার একটি জ্বলন্ত সমস্যা যা শান্তি ও উন্নয়নের জন্য বড় প্রতিবন্ধকতা। বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের মধ্যে রাজনৈতিক ক্ষমতার দ্বন্দ্বের কারণে সমাজে অস্থিরতা বিরাজ করে। এই পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে আমাদের পরমতসহিষ্ণুতায় উৎসাহ দেওয়া প্রয়োজন। যা সামাজিক অস্থিরতা কমাতে পারে।

শনিবার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে সামাজিক উন্নয়ন বিষয়ক এশীয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় আন্তর্জাতিক জোট (আইসিএসডিএপি) এর ৭ম দ্বিবার্ষিক সম্মেলনে বক্তারা এসব কথা বলেন।

বক্তারা আরও বলেন, বিশ্বের অনেক দেশেই জাতিগত নিধন এবং গণহত্যার শিকার হয়ে শান্তি ও নিরাপত্তার খোঁজে দিগ্বিদিক জ্ঞানশূণ্য মানুষ প্রতিবেশী ভিন্ন দেশে আশ্রয় নিচ্ছে। আবার উন্নয়নশীল দেশের মানুষ উন্নত দেশে শরণার্থী হয়ে প্রবেশ করছে। সামাজিক অস্থিরতার মাধ্যমে সৃষ্ট পরিস্থিতি মোকাবেলা করে শান্তি ও উন্নয়নের জন্য ভবিষ্যত সম্ভাবনার দ্বার উন্মোচন করাই এই সম্মেলনের লক্ষ্য।

এছাড়াও বক্তারা গৃহযুদ্ধ, শরণার্থী ও সামাজিক অস্থিরতা, রাজনৈতিক প্রক্রিয়া, দ্বন্দ্ব নিরসন, অর্থনৈতিক বৈষম্য, জনসংখ্যা বৃদ্ধি, বিশ্বায়ন, অভিবাসন, লিঙ্গ বৈষম্য, সহিংসতা, শান্তি এবং উন্নয়ন, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা এবং শান্তি ও উন্নয়নের পরিবেশ, শান্তি, শিক্ষা, সামাজিক উদ্যোগ ও টেকসই উন্নয়ন অর্জনে ব্যবসায়িক-সামাজিক দায়িত্ববোধের ওপর আলোকপাত করবেন।

সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান মিলনায়তনে এ সম্মেলনের উদ্বোধন করেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন-উর-রশিদ আসকারী। সিঙ্গাপুর ইউনিভার্সিটি অব সোসাল সায়েন্স এবং থাইল্যান্ডের থাম্বাসাট বিশ্ববিদ্যালয় এবং ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ আয়োজনে এ সম্মেলন আয়োজিত হয়।

জানা যায়, ফোকলোর স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষক ড. মুস্তাফিজুর রহমানের সঞ্চালনায় সম্মেলনের পৃষ্ঠপোষক এবং সমাজকর্ম বিভাগের সভাপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. শাহিনুর রহমানের সভাপতিত্বে প্রধান পৃষ্ঠপোষক উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন-উর-রশিদ আসকারী, প্রধান আলোচক হিসেবে এশিয় প্রশান্ত মহাসাগরীয় (আইসিএসডিএপির) সভাপতি ও চার্লস স্টুয়ার্স বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ড. মনোহর শঙ্কর পাওয়ার আলোচনা উপস্থাপন করেন। 

এছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সেলিম তোহা, সম্মেলনের সমন্বয়ক অধ্যাপক ড. মামুনুর রহমান ও আইসিএসডিএপি এর চেয়ারপারসন ড. অশোক কুমার সরকার বক্তব্য রাখেন। 

দুই দিনব্যাপী এ আন্তর্জাতিক সম্মেলনে এশিয়া, ইউরোপ ও অস্ট্রেলিয়ার ৮টি দেশের ৪৭ জন সমাজতাত্ত্বিক, শান্তি, নিরাপত্তা ও উন্নয়ন বিশারদসহ মোট ২৬৭ জন গবেষক অংশ নিয়েছেন। দুই দিনের মোট ১৬টি বিষয়ে আলোচনা উপস্থাপন করা হবে বলে জানা গেছে।

বিডি প্রতিদিন/ফারজানা


আপনার মন্তব্য