Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০১:৪৭

‘বনসাইয়ের মাধ্যমে দেশে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে’

সাংস্কৃতিক প্রতিবেদক

‘বনসাইয়ের মাধ্যমে দেশে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে’
রেডিয়েন্ট বনসাই সোসাইটির ১০ম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত প্রদর্শনীর সমাপনি দিনে গতকাল বিভিন্ন স্টাল ঘুরে দেখছেন জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিনসহ অন্যরা —বাংলাদেশ প্রতিদিন

বনসাই শিল্পের মাধ্যমে দেশব্যাপী কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। দেশের অর্থনীতিতে অবদান রাখছেন বনসাইশিল্পীরা। বাণিজ্যিকভাবে বনসাইকে কাজে লাগিয়ে স্বাবলম্বী হওয়ার প্রত্যয় নিয়ে গতকাল শেষ হলো চারদিনের বনসাই প্রদর্শনী। ধানমন্ডির ডব্লিউভিএ মিলনায়তনে প্রদর্শনীর সমাপনীতে প্রধান অতিথি ছিলেন জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিন। রেডিয়েন্ট বনসাই সোসাইটির ১০ম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে এই প্রদর্শনীর আয়োজন করে সংগঠনটি। সংগঠনের সভাপতি গুলসান নাসরীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন বেসরকারি সংস্থা ‘চেষ্টা’র প্রধান লায়লা নাজনীন হারুন।

জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক বলেন, যান্ত্রিক এই নগরে সবুজ দিনে দিনে হারিয়ে যাচ্ছে। বনসাইশিল্পীদের হাত ধরে হারিয়ে যাওয়া সবুজ বৃক্ষরাজি নতুনরূপে ড্রয়িং রুমের শোভা বর্ধন করছে। অনুষ্ঠান শেষে বনসাই প্রদর্শনী ঘুরে দেখেন ফরিদা ইয়াসমিন। এর আগে তিনি বেলুন উড়িয়ে প্রদর্শনীর সমাপনী ঘোষণা করেন।

রংগন, ফুকেন্টি, রক্ত চন্দন, পাকুড়, বাগান বিলাস, বট, চায়না বটসহ ২৫০ প্রজাতির প্রায় তিন শতাধিক বনসাই স্থান পায় এই প্রদর্শনীতে। বৈচিত্র্যময় ডিজাইন অনুযায়ী বনসাই শিল্পকর্মগুলো দাম ছিল ১ হাজার থেকে শুরু করে ১ লাখ টাকা পর্যন্ত। গত ১৩ সেপ্টেম্বর বনসাই প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর