শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৪ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ৩ মার্চ, ২০২১ ২৩:৫২

সূচকের সঙ্গে লেনদেনও কমেছে শেয়ারবাজারে

নিজস্ব প্রতিবেদক

সূচকের সঙ্গে লেনদেনও কমেছে শেয়ারবাজারে

আগের দিনে বড় উত্থান হলেও ফের দরপতন হয়েছে শেয়ারবাজারে। গতকাল শেয়ারবাজারের সব সূচক কমেছে। একই সঙ্গে বেড়েছে লেনদেনে অংশ নেওয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর এবং টাকার পরিমাণে লেনদেন। ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ২০.১৯ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ৫ হাজার ৪৮৮.০৭ পয়েন্টে। ডিএসইতে ৭৭৫ কোটি ৮৪ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৮৩৩ কোটি ৯৪ টাকার। ডিএসইতে ৩৫৬টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।

 এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শেয়ার দর বেড়েছে ১২৫টির, দর কমেছে ১২৯টির এবং ১০২টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট দর অপরিবর্তিত রয়েছে। লেনদেনের শীর্ষে ছিল বেক্সিমকো লিমিটেড। দিন শেষে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার দর ছিল ৮৪ টাকা। আগের দিনের চেয়ে ১ টাকা ৪০ পয়সা কমেছে বেক্সিমকোর শেয়ার দর। দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল রবি আজিয়াটা। এ ছাড়া লেনদেনে শীর্ষ ১০ কোম্পানির মধ্যে ছিল বেক্সিমকো ফার্মা, লঙ্কাবাংলা ফাইন্যান্স, লাফার্জ হোলসিম বাংলাদেশ, সামিট পাওয়ার, জিবিবি পাওয়ার, এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশন, আইডিএলসি ও স্কয়ার ফার্মা। অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৮১.২১ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১৫ হাজার ৯১৬.০৬ পয়েন্টে। সিএসইতে ২৪০টি প্রতিষ্ঠান লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ৮৪টির দর বেড়েছে, কমেছে ৯৭টির আর ৫৯টির দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

সিএসইতে ৩২ কোটি ৭৯ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এনআরবিসি ব্যাংকের আইপিও লটারির ড্র অনুষ্ঠিত এনআরবি কমার্শিয়াল (এনআরবিসি) ব্যাংকের প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) লটারির ড্র অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল রাজধানীর গুলশানে একটি হোটেলে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ সিকিউরিটি এক্সচেঞ্জ কমিশন, ঢাকা স্টক একচেঞ্জ, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের প্রতিনিধি, ব্যাংকের চেয়ারম্যান এস এম পারভেজ তমাল, ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী মো. মুখতার হোসেন, ব্যাংকের কোম্পানি সচিব মোজাম্মেল হোসেন, সিএফও হারুনুর রশিদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এনআরবিসি ব্যাংক কোম্পানির শেয়ার আবেদন গ্রহণ করা হয় গত ৩ ফেব্রুয়ারি থেকে ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। এতে ১২০ কোটি টাকার শেয়ারের বিপরীতে ৮ দশমিক ৭২৯ গুণ আবেদন জমা পড়ে। ১০ টাকা ইস্যু মূল্যে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের জন্য ৬০ শতাংশ শেয়ার এবং যোগ্য প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের জন্য ৪০ শতাংশ শেয়ার বরাদ্দ করা হয়


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর