শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ১১ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ২৩:২৫

কাপ্তাই হ্রদে কচুরিপানার জঞ্জাল

রাঙামাটি প্রতিনিধি

কাপ্তাই হ্রদে কচুরিপানার জঞ্জাল
Google News

রাঙামাটির কাপ্তাই হ্রদজুড়ে কচুরিপানার জঞ্জাল। বন্ধ হয়ে গেছে মাছ ধরার প্রধান চ্যানেল সুবলং। তাই কচুরিপানা অপসারণের উদ্যোগ নিয়েছে রাঙামাটি হ্রদ মৎস্য উন্নয়ন ও বিপণন কেন্দ্র-বিএফডিসি। গতকাল সকালে বিএফডিসি রাঙামাটি হ্রদ মৎস্য উন্নয়ন ও বিপণন কেন্দ্রের ব্যবস্থাপক মো. তৌহিদুল ইসলামের উদ্যোগে শুরু হয় হ্রদ থেকে কচুরিপানা অপসারণের কাজ। বিএফডিসির কর্মকর্তা-কর্মচারী ও স্থানীয় জেলেরা দিনব্যাপী চেষ্টা চালায় কচুরিপানা অপসারণের। বিএফডিসি রাঙামাটি হ্রদ মৎস্য উন্নয়ন ও বিপণন কেন্দ্রের ব্যবস্থাপক মো. তৌহিদুল ইসলাম জানান, পাহাড়ি ঢলে উজান থেকে কচুরিপানা নেমে আসছে। এসব কচুরিপানা রাঙামাটি কাপ্তাই হ্রদের বিভিন্ন পয়েন্টে জমা হওয়ার কারণে হ্রদে যেমন নৌ-চলাচল অব্যাহত হচ্ছে, তেমনি প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হচ্ছে মাছ আহরণে। সম্প্রতি কাপ্তাই হ্রদের মাছ শিকার শুরু হওয়ার পর কচুরিপানার কারণে বন্ধ হয়ে গেছে সুবলং চ্যানেলটি। নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার হওয়ার পর মাত্র পাঁচ দিন মাছ শিকার করতে পেরেছে এ চ্যানেল থেকে জেলেরা। এখন একেবারে বন্ধ। শুধু সুবলং চ্যানেল নয়, হ্রদ এলাকার বরকল, ম্যারিশা, জুরাছড়ি, বাঘাইছড়ি, লংগদু, বিলাইছড়ি, কাপ্তাই ও নানিয়ারচর উপজেলার বিভিন্ন পয়েন্টে রয়েছে বড় বড় কচুরিপানার জঞ্জাল। কচুরিপানার জন্য মাছ শিকারে বেগ পেতে হচ্ছে জেলেদের। আপতত সুবলং চ্যানেল পরিষ্কার করা হচ্ছে। পুরো হ্রদের কচুরিপানা অপসারণ করতে সরকারি সহায়তার প্রয়োজন আছে। জানা গেছে, রাঙামাটি কাপ্তাই হ্রদে কচুরিপানার জন্য এরই মধ্যে ঘটেছে বেশ কিছু ঘটনা-দুর্ঘটনা। কচুরিপানার জঞ্জালে স্পিডবোটের পাঙ্খা আটকে ডুবে গেছে পর্যটক। শুধু তাই নয়, সম্প্রতি সুবলং ঝরনায় বেড়াতে গিয়ে কচুরিপানার জঞ্জালে আটকে পড়েছিল আট পর্যটক।

এই বিভাগের আরও খবর