শিরোনাম
প্রকাশ : ২৮ জানুয়ারি, ২০২১ ২১:০৩
প্রিন্ট করুন printer

আদিতমারীতে বাল্যবিয়ে পণ্ড

লালমনিরহাট প্রতিনিধি

আদিতমারীতে বাল্যবিয়ে পণ্ড
প্রতীকী ছবি

লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার পলাশী ইউনিয়নের মদনপুর গ্রামে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেলো ফরজেনা খাতুন (১৬) নামে নবম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রী। বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে আদিতমারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মুহাম্মদ মনসুর উদ্দিনের হস্তক্ষেপে এ বিয়ে বন্ধ করা হয়। 

স্থানীয়রা জানান, গ্রামটির ফজলুল হকের নবম শ্রেণি পড়ুয়া মেয়ে ফরজেনার বাল্যবিয়ের আয়োজন করে পরিবার। এমন একটি গোপন তথ্যের ভিত্তিতে দুপুরের দিকে পুলিশ নিয়ে ওই বাড়িতে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন ইউএনও মুহাম্মদ মনসুর উদ্দিন। পুলিশের উপস্থিতি বুঝতে পেরে কৌশলী পরিবার বাল্যবিয়ের কনে ফরজেনাকে সরিয়ে তার আত্মীয় এক গৃহবধূকে নববধূ হিসেবে উপস্থাপন করেন।

কিন্তু ভ্রাম্যমাণ আদালত তদন্ত করে প্রকৃত কনে ফরজেনাকে শনাক্ত করে কনের মা আফরোজাকে আটক করেন। মেয়ের বাল্যবিয়ের কথা স্বীকার করলে কনের মা আফরোজাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এছাড়া প্রাপ্ত বয়স না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দেবে না মর্মে মেয়ের মা আফরোজা মুচলেকা দেন। ইউএনও মুহাম্মদ মনসুর উদ্দিন ঘটনার সত্য নিশ্চিত  করেন। 

বিডি প্রতিদিন/আল আমীন

 


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর