শিরোনাম
প্রকাশ : ৮ মে, ২০২১ ২১:২৯
প্রিন্ট করুন printer

পাবনায় জাকাতের কাপড় আনতে গিয়ে মারামারি, ছুরিকাঘাতে ভিক্ষুক নিহত

পাবনা প্রতিনিধি

পাবনায় জাকাতের কাপড় আনতে গিয়ে মারামারি, ছুরিকাঘাতে ভিক্ষুক নিহত
Google News

জাকাতের কাপড় আনতে গিয়ে পাবনায় দুই ভিক্ষুকের মারামারি ও ছুরিকাঘাতে এক নারী ভিক্ষুক নিহত হয়েছেন। নিহত ভিক্ষুকের নাম আল্লাদী খাতুন (৪৫)।

শনিবার সকালে শহরের দিলালপুরে এ ঘটনা ঘটে। 

প্রত্যক্ষদর্শী আসমা খাতুন নামে এক ভিক্ষুক জানান, ভিক্ষা ও জাকাতের কাপড় সংগ্রহের জন্য দিলালপুর মহল্লার বড়বাজার সংলগ্ন পানির ট্যাংক এলাকার একটি বাড়ির সামনে কয়েকজন ভিক্ষুক জড়ো হন। এসময় ভিক্ষুক আল্লাদীর সঙ্গে আরেক নারী ভিক্ষুকের বাগবিতণ্ড শুরু হয়। একপর্যায়ে দুজনের মধ্যে কথা কাটাকাটি থেকে হাতাহাতি শুরু হয়। পরে পাশে থাকা লুঙ্গি ও পাঞ্জাবি পরিহিত এক মধ্যবয়সী পুরুষ ভিক্ষুক এসে আল্লাদীকে ধারালো ছুরি দিয়ে এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করেন। এসময় অন্য ভিক্ষুকেরা ধাওয়া দিলে পুরুষ ভিক্ষুকটি পালিয়ে যায়।

পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম বলেন, শবে বরাতের রাতে ওই নারী ভিক্ষুকের সাথে ভিক্ষুক আল্লাদীর কথাকাটাকাটি হয়েছিল। ধারণা করা হচ্ছে সেই থেকে দুজনের মধ্যে বিরোধ চলছিল। সেই বিরোধের জেরধরে এই হত্যাকাণ্ড সংঘঠিত হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ঘাতকের বাড়ি সুজানগর উপজেলায় বলে জেনেছেন। স্থানীয়দের কাছ থেকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়। আল্লাদী শহরের অনন্ত বাজার সংলগ্ন দ্বীপচরে ভাড়া বাড়িতে থাকতেন।

তিনি আরও বলেন, ঘটনাস্থলের একটি বাড়ির সিসি ক্যামেরা ফুটেজ দেখে ঘাতককে চিহ্নিত করা হচ্ছে।

পাবনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসিম আহমেদ জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা প্রক্রিয়াধীন।

বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন

এই বিভাগের আরও খবর