শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ৭ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ৬ মে, ২০২১ ২৩:০৩

করোনাকালে আয় কমছে

ক্ষতিগ্রস্ত ৬৫ শতাংশ মানুষ

Google News

করোনা মহামারীর কারণে বিশ্বে প্রতি দুজনে একজনের আয় কমেছে। ওয়াশিংটনভিত্তিক জনমত জরিপ প্রতিষ্ঠান গ্যালাপ বলছে, বিশেষ করে নিম্ন আয়ের দেশগুলোয় মানুষ চাকরি হারিয়েছে অথবা তাদের কর্মঘণ্টা কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। জরিপে অংশগ্রহণকারী বাংলাদেশসহ ৫৭ দেশের ৬৫ শতাংশ মানুষ বলেছে মহামারীতে তাদের কাজ বন্ধ হয়ে গেছে। ভারত, জিম্ব^াবুয়ে, ফিলিপাইন, কেনিয়া, এল সালভাদরের মতো দেশের মানুষও এ জরিপে অংশ নেয়। তবে উন্নত ও উচ্চ আয়ের দেশগুলোয় কাজ বন্ধ করে দিতে হয়েছে এমন মানুষের সংখ্যা তুলনামূলক কম। মহামারীর আগে থেকেই বেসরকারি বিনিয়োগ, বিদেশি বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থানের পরিস্থিতি ভালো ছিল না। কভিড-১৯-এর অভিঘাতে এসব সমস্যা আরও তীব্র হয়েছে। গত এক বছরে ৬২ শতাংশ মানুষ তাদের কাজ হারিয়েছে। অনেকে পুনরায় কাজ শুরু করতে সক্ষম হলেও কমেছে অধিকাংশের আয়। ফলে বাধ্য হয়ে তারা ব্যয় কমিয়ে টিকে থাকার চেষ্টা করছে। সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে নিম্ন আয়ের মানুষের। বুধবার বেসরকারি গবেষণা সংস্থা সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি)-এর অনলাইন সংলাপে এসব তথ্য তুলে ধরা হয়। দেশের ১৬ জেলা এবং শহর ও গ্রাম মিলিয়ে বাছাই করা ২ হাজার ৬০০ পরিবারের তথ্য নিয়ে জরিপের কাজ পরিচালিত হয়। সিপিডি বলেছে কর্মসংস্থান হলেও আয় কমেছে। এর মধ্যে সবচেয়ে আয় কমেছে কৃষি খাতে। করোনার প্রভাবে ৭৮ শতাংশ মানুষ তাদের ব্যয় কমিয়ে দিয়েছে। ৫২ শতাংশ খরচ কমাতে গিয়ে খাদ্যাভ্যাস কিছুটা পরিবর্তন করেছে। জরিপে অংশ নেওয়ার মধ্যে ৫০ শতাংশের বেশি মানুষের ঋণের বোঝা বেড়েছে। প্রবাসী শ্রমিকের মধ্যে ৫ শতাংশ বিভিন্ন কারণে দেশে ফিরে এসেছে। যেসব খাত (নির্মাণ, যোগাযোগ, হোটেল, রেস্তোরাঁ) এখনো ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি সেগুলো চিহ্নিত করে ন্যূনতম শর্তে প্রণোদনা দিতে হবে। শহরাঞ্চলে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করতে হবে।