Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ১৯ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৯ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:২৩

ইন্টারভিউ : দিলশাদ নাহার কনা

ব্যস্ততা এখন স্টেজ শো নিয়ে

ব্যস্ততা এখন স্টেজ শো নিয়ে

স্টেজ শো, নতুন সিনেমা ও অডিও গান নিয়ে ব্যস্ত দিলশাদ নাহার কনা। সম্প্রতি গানচিলের ব্যানারে প্রকাশিত হলো তার ‘কেন কে জানে’ শিরোনামের গানের ভিডিও। গান ও সমসাময়িক নানা বিষয় কথা বলেছেন— আলী আফতাব

 

‘কেন কে জানে’ গানটি নিয়ে কিছু বলুন?

গানটি লিখেছেন আসিফ ইকবাল। সুর ও সংগীত পরিচালনা করেছেন কলকাতার অমিত ঈশান। গানটিতে দ্বৈতভাবে কণ্ঠ দিয়েছি আমি আর তাহসান। বছর খানেক পর তাহসানের কোনো গানে কণ্ঠ দিলাম আমি।

 

গানটি কেমন সাড়া পাচ্ছে?

এখন পর্যন্ত ভালো সাড়া পাচ্ছি। এই গানটি করা হয়েছিল একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের জন্য। নাম ‘নিঃশ্বাস’। গানটি নিয়ে চলচ্চিত্রের মধ্যে যে দৃশ্য ধারণ করা হয়েছে, ওই অংশটুকুর ভিডিও আলাদা করে ইউটিউবে প্রকাশিত হলো। গানের কথা ও সুর খুব সুন্দর। তাহসান ভাই চলচ্চিত্রটিতে নিজেও অভিনয় করেছেন।

 

‘দহন’ ছবির ‘প্রেমের বাক্স’ গানটি নিয়ে কিছু বলুন?

ছবিটি এখনো মুক্তি পায়নি। শুধু গানের ভিডিও প্রকাশ পেয়েছে। এরই মধ্যে গানটির দারুণ সাড়া পাচ্ছি। স্টেজে গানটি গাইলে দর্শকরাও আমার সঙ্গে গেয়ে ওঠেন। বোঝা যাচ্ছে, গানটি দর্শক-শ্রোতা ভালোভাবেই নিয়েছেন।

 

দর্শক-শ্রোতাদের জন্য নতুন কোনো গান করছেন?

আমি প্রতিনিয়তই নতুন নতুন গান করছি। কিন্তু কোন গানটি কোন সময় প্রকাশ হচ্ছে অনেক সময় আমি তা জানি না। স্টেজ শোর জন্য এখন নিজের গানগুলো করতে পারছি না। মাস তিনেক আগে আর মিউজিকের জন্য ‘স্বপ্ন’ শিরোনামের একটি গানের ভিডিও বের হয়েছে। গত ঈদুল আজহায় প্রিন্স মাহমুদের ‘ঘোর’ গানটির ভিডিও জি-সিরিজ থেকে বেরিয়েছে। এ ছাড়া এর মধ্যে ফয়সল রাব্বিকীনের লেখা ‘ভেজা বরষা’ ও ‘দূরে থাকা যায় না’ গান দুটিতে কণ্ঠ দিলাম।

 

অনেকেই বলেন স্টেজ শো কমে গেছে। আপনি কী মনে করেন?

স্টেজ শোর জন্য একটি সিজন থাকে। যেমন এখন। কিন্তু আমি দেখেছি আমার সিজন-অফ সিজন সব সময় বেশ শো থাকে। যেমন এই মাসে ঢাকা ও আগামী মাসে ঢাকার বাইরে বেশ কিছু স্টেজ শো আছে।

 

সিনেমায় গানের কী অবস্থা?

নতুন কিছু সিনেমায় গান করার কথা আছে। তবে বিষয়গুলো এখনো চূড়ান্ত হয়নি। তাই সঠিক খবরটি দিতে পারছি না। এ ছাড়া এখন তো সিনেমাই একটু কম তৈরি হচ্ছে।

সারা বছর স্টেজ শো করি। শীতের শুরুতে অন্য বছরগুলোতে শো বেশি ছিল।


আপনার মন্তব্য