শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২১ মে, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ২০ মে, ২০১৯ ২৩:৪২

ঈদ নাটকের শেষ ব্যস্ততা

ঈদ নাটকের শেষ ব্যস্ততা

ঈদের জন্য লাগামহীনভাবে বিভিন্ন নাটকের শুটিং চলছে দেশের বাইরেসহ রাজধানীর বিভিন্ন শুটিং হাউসে।

ফলে ব্যস্ততায় দিন কাটছে অভিনয়শিল্পীদের। তাই নতুন নতুন নাটক, টেলিফিল্ম, ওয়েব সিরিজ আর ধারাবাহিকের কাজ নিয়ে ব্যস্ত নির্মাতারা। ঈদ নাটকের শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি জানাচ্ছেন- পান্থ আফজাল

 

ঈদে দেশের টিভি চ্যানেল ও ডিজিটাল প্লাটফর্মগুলোতে দেখা যাবে তারকা সমাবেশ। নানা চরিত্র বৈচিত্র্য নিয়ে হাজির হবেন মোশাররফ করিম, জাহিদ হাসান, নুসরাত ইমরোজ তিশা, চঞ্চল চৌধুরী, অপূর্ব, নিশো, মেহজাবিন, ইরফান সাজ্জাদ, মনোজ প্রামাণিক, তানজিন তিশা, জাকিয়া বারী মম, রোবেনা জুঁই, ইয়াশ রোহান, শার্লিন ফারজানা, মৌসুমী, তাসনুভা তিশা, নিলয়, শ্যামল মাওলা, শাহনাজ খুশি, নওশাবা, অপর্ণা, সুমাইয়া শিমু, শবনম ফারিয়া, সাফা কবির, তৌসিফ, টয়া, ফারহানা মিলি, শারমিন জোহা শশী, অর্ষা, এফ এস নাঈম, তাসনিয়া ফারিন, তাহসান খান, মিশু সাব্বির, অ্যালেন শুভ্র, নাদিয়া আহমেদ, সারিকা সাবাহ, নাদিয়া মিম, রোমানা রশীদ ঈশিতা, ভাবনা, নাদিয়া খানম,  শেহতাজ, জোভান, তানভীর, প্রভা, মিথিলা, শহীদুল্লাহ সবুজ, মায়মুনা ফেরদৌস মম, ইভান সাইরসহ বেশকিছু অভিনয়শিল্পী। একুশে টিভিতে দেখা যাবে সাজিন বাবুর রচনা ও পরিচালনায় মোশাররফ করিম, জুঁই করিম, তমা মির্জা, ইরেশ যাকের, শহীদুল্লাহ সবুজ, মানসী প্রকৃতি অভিনীত নাটক ‘কোট পরা ভদ্রলোক’। ঈদে আসছে হাসান রেজাউলের নির্মাণে ও জহির রায়হানের চিত্রনাট্যে ইরফান, প্রভা, অর্ষা, তাসনুভা তিশা ও নুসরাত জাহান পাপিয়াকে নিয়ে টেলিছবি ‘শেষ বিকেলের মেয়ে’। জাকির হোসেন উজ্জ্বলের রচনায় এস এম শাহীনের নির্মাণে ঈদের ৭ পর্বের ‘আয়নামতি’ ধারাবাহিকে দেখা যাবে রওনক হাসান, অহনা, তানভীর মাসুদ ও নাইরুজ সিফাতকে। ঈদের বিশেষ নাটক হিসেবে দেখা যাবে ফজলুল সেলিমের নির্মাণে মোশাররফ করিম-জুঁই অভিনীত ‘গুড বয়’, অসীম গোমেজের নির্দেশনায় এনটিভির ৭ পর্বের তারকাবহুল নাটক ‘রং চা’, তপু খানের নির্মাণে ফারিন-মিশু সাব্বির অভিনীত ‘দি ‘মোটিভেশনাল লাভ’ ও ঊর্মিলা-জোভানের ‘আজ শুক্রবার’, আনিসুর রহমান রাজিবের নির্মাণে তৌসিফ-তাসনুভা তিশার ‘কর্মফল’, শহীদুন নবীর নির্মাণে সজল-অর্ষার ‘বুনোফুল’, অনন্য মামুনের নির্মাণে এনটিভির জন্য নাটক ‘অবশেষে ভালোবেসে’। বিভিন্ন চ্যানেলে ভিন্নধর্র্মী কিছু চরিত্র নিয়ে এবারও হাজির হবেন অভিনেত্রী নওশাবা। এই ঈদে ‘মাই নেম ইজ জনি’ নিয়ে চ্যানেল আইয়ের পর্দায় হাজির হচ্ছেন নাট্যকার-নির্মাতা হিমু আকরাম। জনি চরিত্রে অভিনয় করছেন মারজুক রাসেল। তুহিন হোসেনের পরিচালনায় চ্যানেল আইয়ের জন্য নির্মিত টেলিছবি ‘চুল তার কবেকার’-এ অভিনয় করেছেন সারিকা ও মিশু সাব্বির। একই নির্মাতার নির্মাণে অপূর্ব-মেহজাবিন ‘শেষ পর্যন্ত তোমাকে চাই’ নিয়ে বাংলাভিশনে হাজির হচ্ছেন। এই নির্মাতার দুটি কাজেরই রচনায় সারওয়ার রেজা জিমি। স্বাধীন ফুয়াদের নির্মাণে ও নজরুল রাজের প্রযোজনায় এবারে ঈদে আসছে রাজ মাল্টিমিডিয়া নিবেদিত বেশকিছু নাটক। এর মধ্যে রয়েছে ‘স্টেশন’। অভিনয় করেছেন অ্যালেন শুভ্র, সাইফ চন্দন, নজরুল রাজ, স্বাগতা ও রানী আহাদ। একই নির্মাতার নির্মাণে একই প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে নাদিয়া মিম, শাওন, ফারান, নজরুল রাজ, পীরজাদা হারুন অভিনীত নাটক ‘বন্ধু বেঈমান’। এবার ঈদ উপলক্ষে ইউটিউব প্লাটফর্মে বৃদ্ধি পাচ্ছে নাটক-টেলিছবি প্রচার। সিনেমাওয়ালা ইউটিউব চ্যানেলের জন্য চারটি নাটক নির্মাণ হচ্ছে। এবারের ঈদে ইউটিউবের জন্য পাঁচ-ছয়টি নাটক নির্মাণ করছেন মাবরুর রশীদ বান্নাহ। এসব নাটকে মোশাররফ করিম, আ খ ম হাসান ছাড়াও তাহসান, নুসরাত ইমরোজ তিশা, সাবিলা নূর, সৈয়দ জামান শাওন অভিনয় করেছেন। নির্মাতা সেতু আরিফও বেশ কয়েকটি নাটক নিয়ে হাজির হবেন বলে জানা যায়। এবারের ঈদেও সজল স্বপ্রতিভ। মমকে সঙ্গী করে সরদার রোকনের ‘অচেনা মনের গলিতে’ নিয়ে সজল ছোটপর্দায় আসছেন। ঈদে সাজিন আহমেদ বাবুর রচনায় নির্মাতা আবু হায়াত মাহমুদ ইরফান সাজ্জাদ-সাবিলাকে জুটি করে নির্মাণ করেছেন ‘বেয়াড়া বাকের’। এই নির্মাতা জাহিদ হাসান, তিশা, সাজু খাদেম, লাভলু, আর শবনম ফারিয়াকে নিয়ে ‘আলাল দুলাল’ নামে একটি ঈদ স্পেশাল ড্রামা নির্মাণ করেছেন। এবারেও চরিত্রে বৈচিত্র্য নিয়ে হাজির হচ্ছেন অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী। থাকছে তার অভিনীত বেশকিছু একক ও ধারাবাহিক নাটক। থাকছেন ৭ পর্বের নাটকসহ আরও ১৪-১৫টি একক নাটকে। জাকিয়া বারী মম ও এফ এস নাঈমও বেশ কয়েকটি নাটক নিয়ে ছোটপর্দায় হাজির হচ্ছেন। সুমন আনোয়ারের রচনা ও নির্দেশনায় ‘অন্ধকার ঢাকা’য় অভিনয় করেছেন মম। এতে মম’র সহশিল্পী হিসেবে আছেন চঞ্চল চৌধুরী ও শ্যামল মাওলা। মনোজ প্রামাণিক, তাসনিয়া ফারিন ও সারিকা সুবাহ এই সময়ের বেশ পরিচিত নাম। অভিনয়গুণে মুগ্ধতা ছড়াচ্ছেন তারা। এই ঈদেও তিনি বেশ কিছু নাটক নিয়ে হাজির হচ্ছেন। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান টেলিহোম এবারের ঈদের জন্য ধারাবাহিক নাটকের শুটিং করেছে মালয়েশিয়াতে। ১৯৫২ এন্টারটেইনমেন্টের  কর্ণধার সাজু মুনতাসির ব্যাংককে নাটকের শুটিং করছেন। কয়েক বছর ধরে ঈদের জন্য দেশের বাইরে নাটকের শুটিং করছেন নির্মাতা বি ইউ শুভ ও সাখাওয়াত মানিক।


আপনার মন্তব্য