Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৫ এপ্রিল, ২০১৯ ০৯:৫৭

স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির লোকজনের নির্যাতনের বিচার চান মিলা

অনলাইন ডেস্ক

স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির লোকজনের নির্যাতনের বিচার চান মিলা

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের লাইভে এসে স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির লোকজনের নির্যাতনের বিচার চেয়েছেন জনপ্রিয় সঙ্গীতশিল্পী মিলা। বুধবার রাতে তিনি ওই ফেসবুক লাইভ করেন। এর আগে বুধবার বিকেলে রাজধানীর বেইলি রোডস্থ এক রেঁস্তোরায় সংবাদ সম্মেলন করেন মিলা। সেখানে তিনি স্বামী পারভেজ সানজারি ও শ্বশুরবাড়ির লোকজনের নির্যাতনের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন তিনি। তিনি বলেন, তাই এখন একমাত্র আপনাদের সাহায্যই পারবে আমাকে ন্যায্য বিচার দিতে। সবাইকে আমার পাশে থাকার জন্য বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের মে মাসে পারিবারিকভাবে বৈমানিক পারভেজ সানজারির সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন মিলা ইসলাম। পরে নারী নির্যাতন-যৌতুকের অভিযোগ এনে স্বামী সানজারির বিরুদ্ধে মামলা করেন তিনি। সেই মামলা চলছে।

এর আগে মিলা তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে মিলা জানান, দেশের নাগরিক হিসেবে আজকে এই বলব... ওই ছেলের বিচার চাই আমি তাইলে... আরো দুইজন পাইলট যারা আমাকে রাস্তায় রাস্তার অপদস্থ করে নোংরা কথা বলে.. । তারা শুধু আমাকে না বরং আমার বাবা কে নিয়েও প্রকাশ্যে গালি দেয়া.. উল্টা দিকে এরা আমাকে আইসিটি আইনের এর হুমকি দিতে থাকে ....আমি এই তিন জনের বিচার চাই...আমি আমার দেশ ও দেশের সরকার এর কাছে আমার ভেঙে দেয়া মেরুদণ্ড ফিরে চাই...ফাইলের উপর ফাইল করা সকল প্রমাণ আমার কাছে জমা...কিন্তু বাকিদের বিচার কই চাইব? এদিকে ওই ছেলে দেশ ছেড়ে পালানোর জন্য বিভিন্ন বিদেশি এয়ার লাইনে চেষ্টা করে যাচ্ছে... আমার আবেদন আমার নেত্রীর কাছে, আমার অপরাধী যাতে পালাতে না পারে.. আমার মামলা টি দয়া করে আবারো সঠিক ধারায় চার্জ গঠন করার আর্জি জানাই... গত দশ দিন আগে আমি ওই ছেলেকে হাতে নাতে পতিতা নিয়ে ধরলে ওই ছেলে আমাকে "গুলি করে হত্যা করে সেলফ ডিফেন্স বলে প্রমাণ করে দিবে " বলে আমাকে আর আমার বাবাকে এসএমএস করে... গুলি খাওয়ার আগে বিচার চাই...বিচার চাই.. আমি বিচার চাই...

এতে তিনি আরও লিখেছেন, তিন বার আদালতের আদেশ টানা অমান্য করলে জামিন বাতিল হবার কথা..পাঁচ বার আমাকে কোর্ট নানান বুঝ দিয়ে স্থায়ী জামিন দেয়...আমি এখন বলতেও পারি নাই শেষের দিন আমার শাশুড়ি ,আমার স্বামীর কথায় আমাকে কিভাবে বাথরুম থেকে দরজা ভেঙে বিনা কাপড় পরিহিত অবস্থায় জঘন্য ভাবে টেনে আমার দেবর তার স্ত্রী এবং তার স্ত্রীর বাবা মায়ের সামনে এক ঘণ্টা গালিগালাজ করতে থাকে...

বিডি প্রতিদিন/ফারজানা


আপনার মন্তব্য