শিরোনাম
মঙ্গলবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২৩ ০০:০০ টা

উন্নয়নের ভাগ সবাই পাচ্ছে না

নিজস্ব প্রতিবেদক

উন্নয়নের ভাগ সবাই পাচ্ছে না

এসডিজি বাস্তবায়নে নাগরিক প্ল্যাটফরম, বাংলাদেশ এবং সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) ফেলো ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য বলেছেন, বাংলাদেশে উন্নয়ন হয়েছে তবে সবাই সমানভাবে উন্নয়নের ভাগিদার হয়নি। গতকাল ফার্মগেটে কেআইবি কনভেনশন হলে ‘বাংলাদেশের উন্নয়ন আখ্যান ও সমান্তরাল বাস্তবতা : পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর ভাবনা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় এ কথা বলেন তিনি। সিপিডির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান অধ্যাপক রেহমান সোবহানের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা ও মানবাধিকার নেত্রী অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল, নাট্যজন মামুনুর রশীদ, বাংলা একাডেমির সভাপতি কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন, আপিল বিভাগের সাবেক বিচারপতি মো আবদুল মতিন, অধ্যাপক মোস্তাফিজুর রহমান ও সৈয়দ নাসিম মঞ্জুর। দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য তাঁর উপস্থাপিত মূল প্রতিবেদনে বলেন, সরকার তার গৃহীত উন্নয়ননীতি সুষ্ঠুভাবে বাস্তবায়ন করতে পারেনি। এর পেছনে দায়ী গণতান্ত্রিক জবাবদিহিতার অভাব। ব্যক্তি তার দায়িত্ব পালন করেনি, প্রতিষ্ঠান কাজ করেনি এবং দল ও রাষ্ট্র অনেক ক্ষেত্রে ব্যস্ত থেকে গেছে। এ পরিস্থিতি থেকে উত্তরণ পেতে হলে ও সুষম অন্তর্ভুক্তিমূলক উন্নয়ন পেতে হলে গণতান্ত্রিক উত্তরণ জরুরি হয়ে পড়েছে। গণতান্ত্রিক উত্তরণ আগামী দিনের অর্থনৈতিক উন্নয়নের পূর্বশর্ত। বাংলাদেশে নির্বাচন প্রক্রিয়া যত দ্রুত স্বচ্ছ হবে এবং নির্বাচন নিয়ে যেসব সংশয় ও বিভ্রান্তি আছে তা যত দ্রুত কেটে যাবে, আমাদের দ্বিতীয় পর্যায়ের কাজ আমরা তত দ্রুত এগিয়ে নিতে পারব। তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের ধনিক শ্রেণির ১০ শতাংশ দেশের ৪১ শতাংশ আয়কে নিয়ন্ত্রণ করে। আর সবচেয়ে গরিব ১০ শতাংশ নিয়ন্ত্রণ করে মাত্র ১ দশমিক ৩ শতাংশ আয়কে। আয়ের এ ফারাক বছর বছর বাড়ছে। গত ১৫ বছরে দেশে অলিগার্কির (অর্থনৈতিকভাবে বিত্তবান ও রাজনৈতিকভাবে ক্ষমতাবান শ্রেণি) উদ্ভাবন ঘটেছে। রাষ্ট্রের নেতৃত্বে পুঁজিবাদের বিকাশ ঘটেছে।

সর্বশেষ খবর