শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ১২ জুন, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ জুন, ২০২১ ২৩:৩৫

অর্জন

তাসনিম জারার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি

শনিবারের সকাল ডেস্ক

তাসনিম জারার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি
Google News

বাংলাদেশি চিকিৎসক ডা. তাসনিম জারা। বর্তমানে ইংল্যান্ডের ন্যাশনাল হেলথ সার্ভিসে (এনএইচএস) কর্মরত আছেন। সামাজিক মাধ্যমের বদৌলতে তিনি ইতিমধ্যে বেশ পরিচিত। তাকে ‘ভ্যাকসিন লুমিনারি’ হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে যুক্তরাজ্য সরকার। গত ২ জুন জি-৭ গ্লোবাল ভ্যাকসিন কনফিডেন্স সামিটে তাকে এই স্বীকৃতি দেওয়া হয়। জি-৭ প্রেসিডেন্সিতে ব্রিটিশ সরকার প্রথমবারের মতো এ ধরনের ইভেন্ট আহ্‌বান করে। যাতে ভ্যাকসিনের প্রতি আস্থা তৈরি ও বজায় রাখতে সরকারি-বেসরকারি খাত থেকে বিশ্বব্যাপী বিশেষজ্ঞদের একত্রিত করা হয়। তাসনিম জারা ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস সম্পন্ন করে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতকোত্তর পড়ছেন। স্নাতকোত্তরে তার পড়ার বিষয় ‘এভিডেন্স বেজড মেডিসিন’। করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি ও করোনার ভ্যাকসিন ছাড়াও স্বাস্থ্যবিষয়ক বিভিন্ন ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করে সাড়া ফেলেছেন তাসনিম। একমাত্র বাংলাদেশি ভ্যাকসিন লুমিনারি হিসেবে স্বীকৃতি পেয়ে  এক প্রতিক্রিয়ায় ডা. জারা বলেন, ‘আমাকে ব্রিটেনের পক্ষ থেকে বিশ্ব মানচিত্রে তুলে ধরা হলেও আমি বাংলাদেশ ও ভারতের মানুষদের বেশি সেবা দিয়েছি। একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে আমাকে ভ্যাকসিন লুমিনারি হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার ফলে এই প্ল্যাটফরমে বিশ্বের অন্য অংশের প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে আমি গর্বিত।’ ওই সামিটে ব্রিটিশ সরকার এবং পিপলস পিকচারের অংশগ্রহণে স্পষ্ট একটি ফটো মোজাইক ‘দ্য লুমিনারিস’ শিরোনামে অবমুক্ত করা হয়।

ভিডিও এবং ছবি ব্যবহার করে সেখানে ‘ভ্যাকসিন লুমিনারিস’কে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। ‘ভ্যাকসিন লুমিনারিস’ হলেন সেসব ব্যক্তি যারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করে টিকার পক্ষে আস্থা তৈরিতে কাজ করেছেন। এভাবেই ইতিবাচক কাজের মাধ্যমে বিদেশে বাংলাদেশিরা দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করে চলেছেন।