Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২৩:২৮

ফিফটি করেই রেকর্ডবুকে

ক্রীড়া প্রতিবেদক

ফিফটি করেই রেকর্ডবুকে
মেহেদি হাসান মিরাজ

মেহেদি হাসান মিরাজের ওপর ভর করে অনূর্ধ্ব-১৯ যুব বিশ্বকাপ জেতার স্বপ্ন দেখেছিল বাংলাদেশ। পারেনি জুনিয়র টাইগাররা। সেমিফাইনালেই আটকে পড়েছিল। কিন্তু ব্যাট ও বলের দ্যুতি ছড়িয়ে মিরাজ হয়েছিলেন টুর্নামেন্ট সেরা। ধারাভাষ্য দিতে আসা গুণীজনেরা বলেছিলেন, ‘ছোট আসরের বড় তারকা।’ ভুল বলেননি। তখনই সবাই বলাবলি করছিল, ভবিষ্যতের বাংলাদেশ তারকা ক্রিকেটার মেহেদি হাসান মিরাজ। এরপর সব ইতিহাস। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অভিষেক। দুর্দান্ত পারফরম্যান্স। বাংলাদেশসহ বিশ্ব পেল এক তারকা ক্রিকেটার। কিন্তু বল হাতে যতটা সফল, ক্যারিয়ারের প্রথম চার টেস্টে ব্যাট হাতে ঠিক ততটাই ব্যর্থ। তখনই আবার নিন্দুকেরা বলাবলি করতে শুরু করে, মিরাজ এখনো বড় আসরের ক্রিকেটার হতে পারেনি। বড় আসরের ছোট তারকা ক্রিকেটার। অবশেষে নিন্দুকের সমালোচনার জবাব দিলেন হায়দরাবাদ টেস্টে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে। অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমের সঙ্গে সপ্তম উইকেট জুটিতে ৮৭ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটি গড়ে দিন পার করেন। নিজে অপরাজিত থাকেন ৫১ রানে। দুই ব্যাটসম্যানের অবিচ্ছিন্ন জুটিতে বাংলাদেশ তৃতীয় দিন পার করেছে ৬ উইকেটে ৩২২ রান তুলে।

হায়দরাবাদে মিরাজ যে নিজেকে মেলে ধরবেন, সেটার প্রমাণ রেখেছিলেন দ্বিতীয় দিনেই। তাইজুল ইসলামের বলে ‘উড়ন্ত পাখি’ হয়ে দুর্দান্ত ক্যাচ নিয়েছিলেন আজিঙ্কা রাহানের। দিন শেষে মিডিয়ার মুখোমুখিতে বলেছিলেন, ‘ব্যাটিংয়ে নিজেকে মেলে ধরবেন।’ কথা রেখেছেন ১৯ বছর বয়সী মিরাজ। ১০৩ বলে ৫১ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলে স্বপ্ন বাঁচিয়ে রেখেছেন বাংলাদেশের। অবশ্য সঙ্গী মুশফিক ব্যাট করছেন ৮১ রানে।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে চট্টগ্রামে অভিষেক। ইংলিশদের বিপক্ষে দারুণ বোলিং করে দুই টেস্টে ১৯ উইকেট নিয়ে হৈচৈ ফেলে দেন। কিন্তু ব্যাটিংয়ে ছিলেন পুরোপুরি ব্যর্থ। দুই টেস্টের চার ইনিংসে রান করেন মাত্র ৫(১, ১, ১ ও ২)। নিউজিল্যান্ড সফরেও ছিলেন ব্যর্থ। বল হাতে ৪ উইকেট নিলেও দুই অঙ্কের রান করেন ক্রাইস্টচার্চ টেস্টের প্রথম ইনিংসে। সিরিজে চার ইনিংসে রান করেন ১৫(০, ১, ১০ ও ৪)।  অবশেষে নিজেকে মেলে ধরেন হায়দরাবাদের ঐতিহাসিক টেস্টে। ২৩৫ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে দল যখন পুরোপুরি কোণঠাসা, তখনই আস্থার প্রতীক হয়ে ওঠেন মিরাজ। আশ্বস্ত করেন অধিনায়ককে। বাউন্ডারিতে হাফসেঞ্চুরি হাঁকানো মেহেদি মিরাজ অধিনায়কের সঙ্গে সপ্তম উইকেট জুটিতে যোগ করেন ৮৭ রান। আজ আরও বড় কিছুর স্বপ্ন নিয়ে খেলতে নামবেন। বল হাতে ৪২ ওভারে ১৬৫ রানের খরচে নেন ২ উইকেট। দ্বিতীয় দিন শেষে মিডিয়ার মুখোমুখিতে মিরাজ বলেছিলেন, ‘ব্যাট হাতে সুযোগ পেলে দলের জন্য কিছু একটা করতে চাই। আমি যেখানে ব্যাট করব, সেটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ জায়গা। যদি রান করতে পারি, তাহলে দলের লাভ হবে এবং নিজের আত্মবিশ্বাসও বাড়বে।’ কথা রেখেছেন মেহেদি মিরাজ। উমেশ যাদব, ঈশান্ত শর্মা, রবীচন্দন অশ্বিন, রবীন্দ্র জাদেজাদের সামলে পাঁচ টেস্ট ক্যারিয়ারে তুলে নেন প্রথম সেঞ্চুরি। এখন শুধু অপেক্ষা আজ চতুর্থদিন কোথায় থামবেন মেহেদী হাসান মিরাজ।


আপনার মন্তব্য