শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১১ জুলাই, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১০ জুলাই, ২০১৯ ২২:৫১

মাছে প্রকাশ্যে মেশানো হচ্ছে কেমিকেল

সিলেটে নীরব প্রশাসন, নিয়মিত অভিযানের দাবি

শাহ্ দিদার আলম নবেল, সিলেট

মাছে প্রকাশ্যে মেশানো হচ্ছে কেমিকেল

সিলেটের মাছের সবচেয়ে বড় পাইকারি আড়ত কাজিরবাজার। প্রতিদিন দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে শত শত ট্রাক মাছ আসে এই আড়তে। এরপর ব্যবসায়ীরা এই আড়ত থেকে মাছ নিয়ে যান সিলেট বিভাগের বিভিন্ন বাজারে।

ব্যবসায়ীরা এই আড়তকে ফরমালিনমুক্ত ঘোষণা করলেও গত কয়েকদিন থেকে মাছে কেমিকেল  মেশানোর ভয়াবহ ভিডিও চিত্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এরপর থেকে অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বিভিন্ন মহল থেকে দাবি উঠেছে।

চিকিৎসকরাও বলছেন, কেমিকেল মেশানো এসব মাছ খেলে ক্যান্সারের মতো মারাত্মক ব্যাধিতে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। কিন্তু মাছে প্রকাশ্যে  কেমিকেল মেশানো হলেও নীরব দর্শকের ভূমিকায় রয়েছে প্রশাসন।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা গেছে, দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে আসা মাছ ট্রাক থেকে নামিয়ে পরিষ্কার করার জন্য শ্রমিকরা নিয়ে যাচ্ছেন সুরমা নদীতে। সেখানে মাছ পরিষ্কার করে প্রকাশ্যে কেমিকেল মেশাচ্ছেন। মাছের          ফুলকায় ক্ষতিকারক রঙ মেশিয়ে সেগুলোকে তাজা দেখানোরও চেষ্টা করা হচ্ছে। পরে মাছগুলোকে নতুন করে বাক্সবন্দি করা হচ্ছে। নামপ্রকাশ না করার শর্তে কাজিরবাজার আড়তের কয়েকজন শ্রমিক জানান, ট্রাকে আনার সময় যেসব মাছ নরম বা পচে যায় সেগুলোতে বেশি করে ফরমালিন মেশানো হয়। এসব মাছে রঙও দেওয়া হয় বেশি। এছাড়া নরম মাছ শক্ত করার জন্যও আলাদা কেমিকেল ব্যবহার হয়ে থাকে।

সুশাসনের জন্য নাগকির-সুজন সিলেটের সভাপতি ফারুক মাহমুদ চৌধুরী বলেন, খাদ্যে বিষ মিশানোর বিরুদ্ধে সিলেটে প্রশাসনের নিয়মিত কোনো অভিযান নেই। এই সুযোগে অসাধু ব্যবসায়ীরা অনেকটা বেপরোয়া হয়ে উঠেছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর