শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২ ডিসেম্বর, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১ ডিসেম্বর, ২০২০ ২৩:২২

চট্টগ্রামে শঙ্কা-সংশয়ে হাম-রুবেলা কর্মসূচি

রেজা মুজাম্মেল, চট্টগ্রাম

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) এলাকায় ৯ মাস থেকে ১০ বছর বয়সী সাড়ে ১০ লাখ শিশু-কিশোরকে হাম-রুবেলা টিকা দেওয়ার লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়। আগামী ৫ ডিসেম্বর থেকে দেশজুড়ে এ কর্মসূচি শুরু হওয়ার কথা। কিন্তু স্বাস্থ্য সহকারীদের সংগঠন বাংলাদেশ হেলথ অ্যাসিস্ট্যান্ট অ্যাসোসিয়েশন নানা  দাবিতে কর্মবিরতি শুরু করে। ফলে শঙ্কা-সংশয়ে পড়েছে হাম-রুবেলা কর্মসূচি। জানা যায়, ৫ ডিসেম্বর থেকে ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত জাতীয় হাম-রুবেলা ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত হবে। দেশ থেকে হাম-রুবেলা নির্মূলের লক্ষ্যে এ কর্মসূচিতে ৯ মাস থেকে ১০ বছর বয়সী প্রতিটি শিশুকে একটি করে ‘এম আর’ টিকা দেওয়া হবে। চসিক এবার সাড়ে ১০ লাখ শিশু-কিশোরকে হাম-রুবেলা টিকা দেওয়ার লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে। এ নিয়ে চসিক এলাকায় হাম-রুবেলা ক্যাম্পেইনে দায়িত্বপ্রাপ্ত সুপারভাইজার, ভ্যাক্সিনেটর ও স্বেচ্ছাসেবকদের প্রশিক্ষণ প্রদান করেছে। করোনার কারণে নিয়মিত টিকাদান কেন্দ্রেই এ কর্মসূচি চলবে। চসিকের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) ডা. মোহাম্মদ আলী বলেন, ‘৯ মাস থেকে ১০ বছর বয়সীদের একটি করে হাম-রুবেলা টিকা দেওয়া হবে। এর আগে দেশে প্রথম হাম-রুবেলা টিকা দেওয়া ২০০৯ সাল ও দ্বিতীয়বার দেওয়া হয় ২০১৪ সালে।

 কর্মসূচি সফল করতে ৮২ জন সুপারভাইজারসহ মোট ৪৭৫ জন স্বাস্থ্যকর্মীকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়।’ ‘বর্তমানে দেশজুড়ে স্বাস্থ্য সহকারীরা নানা দাবি নিয়ে আন্দোলন করছেন। সমাধান না হলে কর্মসূচিও স্থগিত হওয়ার সম্ভাবনা আছে। বাংলাদেশ হেলথ অ্যাসিস্ট্যান্ট অ্যাসোসিয়েশনের দাবি বাস্তবায়ন পরিষদের সদস্য সচিব ওয়াসিম উদ্দিন রানা বলেন, ‘আমাদের কর্মবিরতি অব্যাহত আছে। একই সঙ্গে আলোচনাও চলছে। আশা করি, বৈঠকের মাধ্যমে আলোচনা ফলপ্রসূ হবে এবং আমাদের যৌক্তিক দাবি পূরণ হবে।’  সংগঠনের চট্টগ্রাম জেলা কমিটির সভাপতি হুমায়ুন রশীদ চৌধুরী বলেন, ‘স্বাস্থ্য সহকারীদের কর্মবিরতি চলছে। এ কারণে স্বাস্থ্য সহকারীরা হাম-রুবেলা টিকা কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করবে না। আমরা চাই সমস্যার সমাধান হোক। হাম-রুবেলা টিকা যথারীতি চলুক।’ জানা যায়, বর্তমানে চট্টগ্রামে প্রতি ইউনিয়নে ২৪টি কেন্দ্র আছে, ১৪ উপজেলায় কেন্দ্র আছে প্রায় এক হাজার ৬৮০টি। প্রতিটি কেন্দ্রে দৈনিক ৭০-৮০ জন শিশু, কিশোর-কিশোরী, গর্ভকালীন টিকা, ধনুষ্টংকার টিকা ও স্বাস্থ্য শিক্ষা গ্রহণ করতে নানা বয়সী প্রায় ১০০ সেবা গ্রহণ করে থাকে। বর্তমানে চট্টগ্রামে স্বাস্থ্য সহকারী পদে কর্মরত আছেন ৬৭৫ জন, সহকারী স্বাস্থ্য পরিদর্শক ২৮৪ জন ও স্বাস্থ্য পরিদর্শক ১৫৩ জন। 

 


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর