২৩ জানুয়ারি, ২০২৩ ২০:৩০

বগুড়ায় তিন যুগ পর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অপারেশন থিয়েটার চালু

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া

বগুড়ায় তিন যুগ পর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অপারেশন থিয়েটার চালু

বগুড়ায় তিন যুগ পর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অপারেশন থিয়েটার চালু

বগুড়ার শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তিন যুগ পর চালু হলো অপারেশন থিয়েটার। গত বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় শহরের গোসাইপাড়ার আনন্দ শর্মার স্ত্রী প্রসূতি স্বর্ণা শর্মার সিজারিয়ানের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে অপারেশন চালু করা হয়। দীর্ঘদিন পর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অপারেশন থিয়েটার চালু হওয়ায় স্বস্তি ফিরে এসেছে হাসপাতালে সেবা নিতে আসা রোগীদের। একই সাথে স্বস্তি ফিরেছে হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক ও অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারীদের। উপজেলাবাসী আশা করছেন, এবার থেকে তারা কাঙ্ক্ষিত সেবা পাবেন।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, সরকারি এই হাসপাতাল প্রতিষ্ঠার ৩৬ বছর পর অপারেশন থিয়েটার চালু হলো। এতদিন অপারেশন থিয়েটার ও সংশ্লিষ্ট চিকিৎসক না থাকায় সরকারি এই হাসপাতালে অপারেশন করা যাচ্ছিল না। শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অপারেশন চালু হওয়ায় এই উপজেলাসহ আশপাশের উপজেলার প্রসূতি মায়েরা এখান থেকে বিনামূল্যে সেবা পাবেন। অনেক মানুষের মাঝেই একটু ভুল ধারণা রয়েছে। তারা মনে করেন হাসপাতালে নরমাল ডেলিভারি করানো হয় না। এছাড়া এখানকার সেবার মানও ভালো নয়। কিন্তু তাদের ধারণা ভুল। শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নরমাল ডেলিভারি করানো হয়। যদি কোনো গর্ভবতীর সন্তান প্রসবে সমস্যা দেখা দেয়, তাহলে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেই সিজারের ব্যবস্থা রয়েছে। যাতে করে হতদরিদ্র পরিবারের মানুষের বাড়তি টাকা নষ্ট না হয়।

এর আগে এই কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন বগুড়া-৫ (শেরপুর-ধুনট) আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা হাবিবর রহমান।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সাজিদ হাসান সিদ্দিকীর সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন রাজশাহী বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. হাবিবুল আহসান তালুকদার, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক হাছিবুর রহমান ভুঁইয়া, বগুড়ার সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ শফিউল আজম, শেরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সানজিদা সুলতানা, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) বগুড়া জেলা শাখার সভাপতি ডা. সামির হোসেন মিশু, জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সজিব শাহরীন, শেরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সুলতান মাহমুদ ও শেরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান খন্দকার প্রমুখ।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সাজিদ হাসান সিদ্দিকী বলেন, দীর্ঘ তিন যুগ পর সরকারি এই হাসপাতালে অপারেশন থিয়েটার চালু হলো। স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অপারেশন চালু হওয়ায় এই উপজেলাসহ আশপাশের উপজেলার প্রসূতি মায়েরা এখান থেকে বিনামূল্যে সেবা পাবেন। এখানে নরমাল ডেলিভারি করানো হয়। যদি কোনো গর্ভবতীর সন্তান প্রসবে সমস্যা দেখা দেয়, তাহলে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেই সিজারের ব্যবস্থা রয়েছে। তাই সব প্রসূতি মায়েদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডেলিভারি করানোর জন্য আহ্বান জানান। এতে মা ও শিশুর স্বাস্থ্য সুরক্ষা হবে।

বিডি প্রতিদিন/এমআই

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর