শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ২৪ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ ডিসেম্বর, ২০১৭ ২৩:৫৩

আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও জাপার একাধিক প্রার্থী মাঠ কাঁপাচ্ছেন

আল আমিন, সোনারগাঁ

আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও জাপার একাধিক প্রার্থী মাঠ কাঁপাচ্ছেন

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে নারায়ণগঞ্জ-৩ (সোনারগাঁ) আসনের মনোনয়নপ্রত্যাশীরা জোর প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও জাতীয় পার্টির সম্ভাব্য একাধিক প্রার্থী মাঠে রয়েছেন।

সোনারগাঁ উপজেলা মাঠ জরিপে জানা যায়, আওয়ামী লীগের দুর্গ হিসেবে পরিচিতি থাকলেও দলীয় কোন্দলের কারণে আসনটি বার বার দলের হাতছাড়া হয়েছে। ১৯৯১ ও ’৯৬ সালে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আবুল হাসনাতকে পরাজিত করে রেজাউল করিম এমপি নির্বাচিত হন। ২০০১ সালে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পান আবু নুর মোহাম্মদ বাহাউল হক। তাকে পরাজিত করে সেবারও নির্বাচিত হন বিএনপির রেজাউল করিম। এর পর থেকে সোনারগাঁ বিএনপির ঘাঁটি। ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বরের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নতুন মুখ মহাজোট প্রার্থী আবদুল্লাহ আল কায়সার রেজাউল করিমকে পরাজিত করে এমপি হন। ২০১৪ সালে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাতীয় পার্টির লিয়াকত হোসেন খোকা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এমপি হন। এবার জাতীয় পার্টি থেকে এ আসনে সম্ভাব্য প্রার্থীর তালিকায় রয়েছেন বর্তমান সংসদ সদস্য ও দলের সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব লিয়াকত হোসেন খোকা এবং কেন্দ্রীয় মহিলা পার্টির সাধারণ সম্পাদক অনন্যা হোসেন মৌসুমী। আওয়ামী লীগ থেকে সম্ভাব্য প্রার্থী তালিকায় রয়েছেন আবদুল্লাহ আল কায়সার, মাহফুজুর রহমান কালাম, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাবেক উপসম্পাদক এইচ এম মাসুদ দুলাল, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. আবু জাফর চৌধুরী বিরু ও আনোয়ারুল কবির ভূইয়া। বিএনপি থেকে এ আসনে সম্ভাব্য প্রার্থী তালিকায় রয়েছেন সাবেক প্রতিমন্ত্রী ও জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি রেজাউল করিম এবং নির্বাহী কমিটির সদস্য ও উপজেলা সাধারণ সম্পাদক আজাহারুল ইসলাম মান্নান। গত উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থীকে বিপুল ভোটে পরাজিত করে তিনি সোনারগাঁ উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। এ ছাড়া সোনারগাঁ নাগরিক কমিটির সভাপতি এ টি এম কামাল, উপজেলা বিএনপির সভাপতি খন্দকার আবু জাফর ও ওয়াহিদ বিন ইমতিয়াজ বকুলও প্রার্থী হতে চান।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর