শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ৯ জুন, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ জুন, ২০২১ ২৩:৫৮

নতুন টিকা পরিকল্পনায় খরচ হবে ৫০ হাজার কোটি রুপি

নতুন টিকা পরিকল্পনায় খরচ হবে ৫০ হাজার কোটি রুপি
Google News

ভারত করোনাভাইরাসের টিকা দেওয়ার ক্ষেত্রে নতুন পরিকল্পনা করছে। আর এই পরিকল্পনায় খরচ হবে ৫০ হাজার কোটি রুপি। তবে এতে অর্থ কোনো সমস্যা হবে না জানিয়েছে দেশটির অর্থ মন্ত্রণালয়। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ঘোষণা করেছেন, রাজ্যগুলোর কাছ থেকে টিকা কেনার ক্ষমতা নিয়ে নিচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার। এর একদিন পরেই অর্থ মন্ত্রণালয় ওই ঘোষণা দিয়েছে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন এনডিটিভি। মন্ত্রণালয়ের সূত্রগুলো বলেছেন, যেহেতু পর্যাপ্ত অর্থ আছে তহবিলে, তাই আমরা তাৎক্ষণিকভাবে সম্পূরক ঋণের দিকে যাচ্ছি না। দ্বিতীয় পর্যায়ে এর প্রয়োজন হতে পারে, যখন শীতকালীন অধিবেশন বসবে পার্লামেন্টের। বর্তমানে পরিস্থিতি সামলে নেওয়ার মতো অর্থ আমাদের হাতে আছে। সূত্রগুলো আরও বলেছেন, টিকার প্রয়োজন মিটাতে ভারত সরকার আর বিদেশি টিকার দিকে হাত বাড়াবে না। কারণ টিকা তৈরির বড় প্রতিষ্ঠানেই রয়েছে দেশটিতে। ভারত বায়োটেক, সেরাম ইনস্টিটিউট, বায়ো-ই’র মতো প্রতিষ্ঠান। বাকি জনগোষ্ঠীকে টিকা সরবরাহ দিতে পারব আমরা। টিকা প্রস্তুতকারকদের ক্ষতিপূরণ দাবির পরিপ্রেক্ষিতে ফাইজার এবং মডার্নার সঙ্গে টিকা কেনার বিষয়টি বর্তমানে আটকে আছে। ভারতের অর্থ মন্ত্রণালয়ের সূত্র বলেছেন, আগামী জানুয়ারির আগে ভারতে মডার্নার টিকা প্রবেশের কোনো পরিকল্পনা নেই। এ ছাড়া ভারত বায়োটেকের কোভ্যাক্সিন, সেরাম ইনস্টিটিউটের কোভিশিল্ড এবং রাশিয়ার স্পুটনিক ভি টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে ভারতে। কিন্তু স্পুটনিক-ভি টিকা পর্যাপ্ত আকারে পাওয়া যাবে না। ভারত সরকারের একটি সূত্র বলেছে, এখন পর্যন্ত এই টিকা কেনা শুরুই করা হয়নি।