Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ নভেম্বর, ২০১৮ ২৩:১১

অষ্টম কলাম

পশ্চিমবঙ্গের নাম বদলের মমতার প্রস্তাব নাকচ

দীপক দেবনাথ, কলকাতা

পশ্চিমবঙ্গের নাম বদলের মমতার প্রস্তাব নাকচ

ওয়েস্টবেঙ্গলের নাম বদল করার যে স্বপ্ন দেখে আসছেন রাজ্যটির মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি, তাঁর সেই ইচ্ছায় আপত্তি জানাল ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। মমতার ইচ্ছা ছিল রাজ্যের নাম বদল করে রাখা হোক ‘বাংলা’। এ ব্যাপারে কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে প্রস্তাবও পাঠানো হয়। কিন্তু ওই নামে প্রতিবেশী রাষ্ট্র বাংলাদেশের সঙ্গে মিল থাকার কারণেই ওই নামটি নিয়ে আপত্তি জানিয়ে রাজ্যের প্রস্তাব ফিরিয়ে দিল ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। পরিবর্তে মন্ত্রণালয়ের তরফে রাজ্যকে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে ‘বাংলা’র পরিবর্তে ‘পশ্চিমবঙ্গ’ নাম রাখা যেতে পারে। রাজ্যের নাম বদল করতে চেয়ে মমতা ব্যানার্জির সরকার ২০১১, ২০১৬ এবং সর্বশেষ ২০১৮ সালে তিনবার প্রস্তাব পাঠায়। প্রথমবার সরকার সেই প্রস্তাব খারিজ করে। দ্বিতীয়বার বাংলা, হিন্দি ও ইংরেজি— এই তিনটি ভাষায় নাম রাখার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল। বলা হয়েছিল বাংলায় রাজ্যের নাম হবে ‘বাংলা’, হিন্দিতে ‘বঙ্গাল’ এবং ইরেজিতে ‘বেঙ্গল’। কিন্তু বিজেপিশাসিত এনডিএ সরকারের তরফে রাজ্যকে জানানো হয়েছিল যে, এর মধ্যে কোনো একটি নাম তিনটি ভাষাতেই করা হোক। এ ব্যাপারে রাজ্যটির বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ জানান, ‘আমরা দাবি জানিয়ে আসছি ওয়েস্টবেঙ্গলের নাম যদি পরিবর্তন করতে হয় তবে তিনটি ভাষাতেই ‘পশ্চিমবঙ্গ’ রাখা হোক।’ সূত্রের খবর ওয়েস্টবেঙ্গলের নাম ‘বাংলা’ হলে আন্তর্জাতিক মঞ্চে ‘বাংলা’ ও ‘বাংলাদেশ’ নিয়ে কিছু বিভ্রান্তি দেখা দিতে পারে। এ কারণেই রাজ্যের নাম বদল করে ‘বাংলা’ করার যে প্রস্তাব মমতা রেখেছেন তাতে আপত্তি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়েরও। সম্প্রতি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তরফেও কেন্দ্রীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে পাঠানো চিঠিতে এই উদ্বেগের বিষয়টি জানানো হয়। পরিস্থিতি এমন পর্যায়ে দাঁড়িয়েছে, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তরফে এই আপত্তি থাকার কারণে রাজ্য সরকারকে ‘পশ্চিমবঙ্গ’ নামটিই রেখে দিতে হবে, না হয় অন্য নাম খুঁজতে হবে যাতে বাংলাদেশের সঙ্গে নামের ক্ষেত্রে কোনো সাদৃশ্য না থাকে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর