Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ আগস্ট, ২০১৯ ২৩:১৬

ট্রেন শিডিউল নিয়ে আবারও ভোগান্তি

ঢাকায় ফেরা মানুষের চাপ স্টেশন-টার্মিনালে

নিজস্ব প্রতিবেদক

ঢাকায় ফেরা মানুষের চাপ স্টেশন-টার্মিনালে
ঢাকায় ফিরছে মানুষ। সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনাল থেকে গতকাল তোলা ছবি -বাংলাদেশ প্রতিদিন

ঈদের ছুটির পর সাপ্তাহিক ছুটিও শেষ, এবার কাজে ফেরার পালা। প্রিয়জনের সান্নিধ্যে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে রাজধানীমুখী হয়েছেন কর্মজীবী মানুষ। গতকাল সকাল থেকেই রাজধানীর বাস টার্মিনালগুলোতে ঢাকায় ফেরা মানুষের চাপ দেখা গেছে। বুধবার থেকে সরকারি ও বেসরকারি দফতরগুলো খোলা থাকলেও উপস্থিতি ছিল কম। অনেকেই ঐচ্ছিক ছুটি মিলিয়ে টানা ৯ দিনই প্রিয়জনদের সঙ্গে কাটানোর সুযোগ কাজে লাগিয়েছেন। আজ রবিবার পুরোদমে অফিস চলবে। ফলে ঝামেলা এড়াতে অনেকেই বৃহস্পতিবার-শুক্রবারেই ঢাকায় ফিরে আসেন। তবে শুক্রবারের তুলনায় গতকাল ঢাকায় ফেরা মানুষের চাপ ছিল বেশি। পরিবহন-সংশ্লিষ্টরা বলছেন, আজও ঢাকায় ফেরা মানুষের চাপ অব্যাহত থাকবে।

তবে ট্রেনের শিডিউল এখনো ভোগাচ্ছে যাত্রীদের। যানজট রয়েছে কাঁঠালবাড়ী ও দৌলতদিয়া ফেরিঘাটেও। তারপরও ঈদ শেষে ঢাকায় নির্বিঘ্নেই ফিরেছেন সবাই। চাপ বেড়েছে সড়ক মহাসড়কগুলোতে। প্রধান প্রধান ঘাটগুলোতে ছিল একই চিত্র। ঈদের আগে বাড়ি ফেরার দুর্ভোগ থাকলেও কর্মস্থলে ফেরার পথে তেমন একটা ভোগান্তি না থাকায় কিছুটা স্বস্তি ছিল যাত্রীদের মাঝে। সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালেও ছিল দক্ষিণাঞ্চল থেকে ঢাকায় ফেরা মানুষের ভিড়। বিড়ম্বনা ছাড়াই ঢাকায় ফিরতে পেরে খুশি তারা। রাজধানীর সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনাল এবং কমলাপুর স্টেশন ঢাকায় ফেরা মানুষের পদচারণায় মুখর ছিল গতকাল। ট্রেনের শিডিউল বিপর্যয় অব্যাহত থাকায় ঢাকায় ফেরা মানুষজনের ভোগান্তি গতকালও ছিল। দক্ষিণাঞ্চলের হাজারও মানুষ লঞ্চে ফিরছেন রাজধানীতে। যাত্রীতে ঠাসা লঞ্চগুলোতে বেশ ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে রাজধানীতে ফেরা এসব মানুষকে। ছিল অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের অভিযোগও। এদিকে লঞ্চের চেয়ে ট্রেনযাত্রীদের ভোগান্তি ছিল বেশি। সকালে কমলাপুর রেলস্টেশনে বিভিন্ন গন্তব্য থেকে ঢাকায় ফিরতে দেখা যায় যাত্রীদের। তবে পশ্চিমাঞ্চলের নীলসাগর, ধূমকেতু, খুলনা থেকে ছেড়ে আসা সুন্দরবন এক্সপ্রেস নির্ধারিত সময় থেকে ৪/৫ ঘণ্টা দেরিতে এসে পৌঁছায়। তবুও ঈদ উদযাপন শেষে ঢাকায় ফেরা মানুষের চোখেমুখে ছিল প্রিয়জনদের সঙ্গে কাটানো আনন্দের স্মৃতি। ঈদ উপলক্ষে টানা এক সপ্তাহ পরে রাজধানী ঢাকা তার চিরচেনা রূপে ফিরে আসতে শুরু করেছে। সপ্তাহজুড়েই ঢাকা ছিল ফাঁকা। বেশিরভাগ বেসরকারি অফিস খুলছে শনিবার থেকে। আজ থেকে পুরোদমে সচল হয়ে উঠবে সরকারি অফিস-আদালত, ব্যাংক-বীমা, চালু হবে মার্কেট-দোকানপাটও। ফলে শুক্রবার থেকেই ঢাকায় ফেরার চাপ বেশি লক্ষ করা গেছে। গতকাল শনিবারও রেলস্টেশন, লঞ্চ টার্মিনাল ও বাস টার্মিনালগুলোয় তিল ধারণের ঠাঁই ছিল না। জানা গেছে, যাত্রীদের হয়রানি এড়াতে হাইওয়ে পুলিশ ও জেলা পুলিশের পাশাপাশি বাস টার্মিনাল ও মহাসড়কে রয়েছে র‌্যাবের সার্বক্ষণিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা। দায়িত্ব পালন করছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) ভিজিলেন্স টিমও। তবে রাজধানীতে পৌঁছানোর পর রিকশা ও সিএনজিচালিত অটোরিকশার ভাড়া বেশি দিতে হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন কেউ কেউ।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর