Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৩ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১২ জানুয়ারি, ২০১৯ ২২:৩৩

সড়কশৃঙ্খলা

সবার দায়বদ্ধ ভূমিকা কাম্য

সড়কশৃঙ্খলা

সড়কশৃঙ্খলার অভাবে বাংলাদেশে দুর্ঘটনায় জীবনহানি নিয়মিত ঘটনায় পরিণত হয়েছে। বছরের এমন একটি দিন খুঁজে পাওয়া দুষ্কর যেদিন সড়ক দুর্ঘটনায় কোনো প্রাণহানি ঘটেনি। রাজধানী ঢাকাসহ দেশের মহানগরী ও মহাসড়কগুলোয় যে যানজটের অভিশাপ প্রায়ই মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে তার প্রধান কারণও সড়কশৃঙ্খলার অভাব। সড়ক-মহাসড়কের যেখানে-সেখানে গাড়ি পার্কিং এবং দোকানপাট এমনকি বাজার বসানো এ দেশে অলিখিত নিয়মে পরিণত হয়েছে। কিছু ব্যক্তির কারণে জিম্মি হয়ে পড়ছে লাখ লাখ মানুষ। আশার কথা, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সড়কশৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠাকে নতুন সরকারের অগ্রাধিকার বলে চিহ্নিত করেছেন। ক্ষমতাসীন দলের সাধারণ সম্পাদক পদে অসীন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেছেন, ইতিমধ্যে তিনি এ ব্যাপারে সড়ক ও জনপথ অধিদফতরকে নির্দেশ দিয়েছেন। সাত দিনের নোটিস দিয়ে যেসব রাস্তা অবৈধ দখলে আছে, সেগুলো দখলমুক্ত করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। পুলিশকে বলা হয়েছে অবৈধ পার্কিং কোনোভাবেই বরদাস্ত করা হবে না। অবৈধ দখল ও পার্কিং- এ দুটো বিষয় রোধ করা গেলে পরিবহনে শৃঙ্খলা অনেকটাই ফিরে আসবে। শৃঙ্খলার অভাবে প্রতিদিনই সড়ক দুর্ঘটনায় বিপুলসংখ্যক মানুষ হতাহত হচ্ছে। যানজটের কারণে সময়ের যে অপচয় ঘটছে তা দেশের অর্থনীতির জন্যও বিসংবাদ ডেকে আনছে। যানজটে শত শত কোটি টাকার জ্বালানির অপচয় ঘটছে যানবাহনগুলোতে। সময়মতো কর্মস্থলে যাওয়া কঠিন হয়ে পড়ছে লাখ লাখ কর্মজীবী মানুষের জন্য। বাংলাদেশ কার্যত অচলও হয়ে পড়ছে এ সমস্যার কারণে। সেদিক থেকে সড়কশৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠার অঙ্গীকার অবশ্যই অভিনন্দনযোগ্য। আমরা আশা করব, বিষয়টি শুধু নির্দেশদানের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকবে না। নির্দেশনাগুলো ঠিকমতো পালিত হচ্ছে কিনা সেদিকেও লক্ষ্য রাখা হবে। সড়কশৃঙ্খলার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সবাই যাতে দায়বদ্ধ ভূমিকা পালন করেন তা নিশ্চিত করাও জরুরি।


আপনার মন্তব্য