শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৩ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২২ মার্চ, ২০২১ ২২:৪৫

সমস্যাক্রান্ত ঢাকা

এক ছাতার নিচে আনতে হবে সব সেবা

Google News

৪০০ বছর আগে মুঘল শাসনামলে ঢাকা সুবে বাংলার রাজধানীর মর্যাদা লাভ করে। তারও আগে জনপদ হিসেবে ঢাকার অস্তিত্ব থাকলেও অতটা পরিচিতি ছিল না। দীর্ঘদিন সুবে বাংলার রাজধানীর মর্যাদায় থাকার পর মুঘলদের পতনের যুগে ঢাকা থেকে রাজধানী স্থানান্তর হয় মুর্শিদাবাদে। ব্রিটিশ শাসনের শেষ দিকে পূর্ব বাংলা ও আসামকে নিয়ে গঠন করা হয় নতুন প্রদেশ। ঢাকাকে এ প্রদেশের রাজধানী করা হয়। তবে বঙ্গভঙ্গের বিরুদ্ধে কলকাতাকেন্দ্রিক তীব্র আন্দোলন দানা বেঁধে উঠলে ব্রিটিশ শাসকরা রণেভঙ্গ দেয়। ঢাকা হারায় রাজধানীর মর্যাদা। ১৯৪৭ সালে ভারত ভাগ হলে পূর্ব বাংলার রাজধানীর মর্যাদা পায় বুড়িগঙ্গা তীরের এই নগরী। এর ২৩ বছর পর ১৯৭১ সালে বাঙালির জাতিরাষ্ট্র বাংলাদেশের রাজধানীর মর্যাদা লাভ করে ঢাকা। ৫০ বছরের ব্যবধানে ঢাকা জনসংখ্যার দিক থেকে বিশ্বের মেগা সিটিগুলোর একটি। দেড় কোটি জনসংখ্যা অধ্যুষিত এ মেগা সিটি ইতিমধ্যে দুনিয়ার অন্যতম যানজটের নগরী হিসেবে বদনাম কিনেছে। বায়ুদূষণের নগরী হিসেবে ঢাকার অবস্থান প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে দীর্ঘদিন ধরে। দুনিয়ার মেগা সিটিগুলোর মধ্যে অব্যবস্থাপনার দিক থেকে সম্ভবত ঢাকার অবস্থান শীর্ষে। এ মহানগরীতে সারা বছর ধরে চলে রাস্তা খোঁড়াখুঁড়ি। সমন্বয়হীন উন্নয়নকাজের বদৌলতে জনদুর্ভোগই শুধু বাড়ছে। ঢাকাকে একসময় বলা হতো মাছি-মশার নগরী। কালের বিবর্তনে এখন মাছির দেখা তেমন না মিললেও মশা নগরবাসীর স্বস্তি কেড়ে নিয়েছে। ঢাকার রাজপথে গণপরিবহনের যাচ্ছেতাই অবস্থা কোনো উন্নয়নশীল দেশের জন্য শোভনীয় নয়। দেড় কোটি মানুষের নগরীতে সুপেয় পানির সংকট যেমন আছে তেমন রয়েছে নিরাপদ খাদ্যের অভাব। সাংস্কৃতিক ও বিনোদনের দিক থেকে রয়েছে ঘোরতর শূন্যতা। এ সংকট থেকে বেরোতে না পারলে ঢাকা বসবাসের অযোগ্য নগরীর বদনাম ঘোচাতে পারবে না। এ অবস্থার অবসানে সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলোকে এক ছাতার নিচে আনতে হবে। যানজট ও বায়ুদূষণের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষগুলো সক্রিয় হবে এমনটিও প্রত্যাশিত।