শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ এপ্রিল, ২০২১ ১৩:৫৪
আপডেট : ১৯ এপ্রিল, ২০২১ ১৬:২১
প্রিন্ট করুন printer

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে আওয়ামী লীগ নেতা গুলিবিদ্ধ

নোয়াখালী প্রতিনিধি

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে আওয়ামী লীগ নেতা গুলিবিদ্ধ
আহত নুরনবী চৌধুরী
Google News

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান নুরনবী চৌধুরী (৬৬) গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। তিনি উপজেলার সিরাজপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এবং একই এলাকার মৃত ফজলের রহমানের ছেলে। সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বসুরহাট পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের মাস্টার পাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। 

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা খিজির হায়াত খান বলেন, কাদের মির্জার নির্দেশে তার অনুসারী বসুরহাট পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের সন্ত্রাসী রাসেল প্রকাশ ওরফে আজ সকালে অস্ত্র নিয়ে পৌরসভার মাস্টার পাড়া এলাকায় ওঁৎপেতে ছিল। নুরনবী চৌধুরী মোটরসাইকেলযোগে নিজ বাড়ি থেকে ভিজিএফ এর চাল আনার জন্য উপজেলা পরিষদের দিকে যাবার পথে পৌরসভার মাস্টার পাড়া এলাকায় পৌঁছালে ওঁৎপেতে থাকা কেচ্ছা রাসেল ও তার ৩০ থেকে ৪০ জনের একটি দল হামলা করে। এসময় তাকে বাম পায়ে গুলি করা হয় এবং পরে পিটিয়ে মারাত্মক আহত করা হয়। হামলাকারীরা নুরনবীর ডান পা ভেঙে দেয়। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা পাঠানো হয়েছে।

সেতুমন্ত্রীর ভাগনে উপজেলা আওয়ামী লীগ সমর্থিত বলয়ের নেতা ফখরুল ইসলাম রাহাত আহত নুরনবী চৌধুরীর উদ্ধৃতি দিয়ে জানান, কাদের মির্জার নির্দেশে তার অনুসারী বসুরহাট পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সন্ত্রাসী কেচ্ছা রাসেল আজ সকালে  পৌরসভার মাস্টার পাড়া এলাকায় ওঁৎপেতে ছিল। নুরনবী চৌধুরী মোটরসাইকেল যোগে নিজ বাড়ি থেকে কয়েকজন অনুসারী নিয়ে বসুরহাট বাজারে আসছিলেন। পৌরসভার মাস্টার পাড়া এলাকায় পৌঁছলে আগে থেকেই ওঁৎপেতে থাকা কেচ্ছা রাসেল ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা তাকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়লে তিনি দুই পায়ে গুলিবিদ্ধ হন। পরে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় সন্ত্রাসী কেচ্ছা রাসেল ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা তাকে পিটিয়ে দুই পা ভেঙে দেয়। এক পর্যায়ে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। 

এ বিষয়ে জানতে বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জাকে ফোন করা হলে তার সহকারী পরিচয় দিয়ে স্বপন মাহমুদ বলেন, মেয়র মহোদয় অসুস্থ, তিনি বিশ্রামে আছেন। হামলার বিষয়ে মেয়র কিছুই জানেন না।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা মো. সেলিম বলেন, তিনি বাম পায়ের হাটুর নিচে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন এবং ডান পা ভেঙে গেছে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য পঙ্গু হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

নোয়াখালীর পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন জানান, নুরনবী চৌধুরী হামলায় আহত হয়েছেন। সেখানে এক রাউন্ড গুলি হয়েছে বলে শুনেছি। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর