শিরোনাম
শনিবার, ৮ জুলাই, ২০২৩ ০০:০০ টা

সালিশে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১০

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি

কুমারখালীতে গরু চুরির সালিশে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ১০ জন আহত হয়েছেন। গতকাল বিকালে উপজেলার চরসাদিপুর ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে। আহতের মধ্যে আবদুল মালেক, কালু ড্রাইভার, হেলাল উদ্দিন, সুফি মণ্ডল, মাসুম, মনসুর ও মিঠুনকে পাবনা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সালিশে সংঘর্ষের ঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে শত শত লোক চেয়ারম্যানসহ ৮-১০ জনকে অবরুদ্ধ করে রাখেন। এতে এলাকায় থমথমে পরিবেশ বিরাজ করছে। স্থানীয় বাসিন্দা মুকুল হোসেন বলেন, ঈদের আগে পাবনা সদর এলাকার ঘাটপাড়ায় গরু চুরির ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে গতকাল দুই পক্ষকে নিয়ে ইউনিয়ন পরিষদে সালিশ বসান চেয়ারম্যান। সালিশে পাবনার লোকজন গোবিন্দপুর গ্রামের মানুষের ওপর হামলা চালালে দুই পক্ষে সংঘর্ষ বাধে। ইউপি চেয়ারম্যান মেছের আলী বলেন, সালিশ চলছিল তাঁর পরিষদে। হঠাৎ মারামারি শুরু হয়।

কয়েকজনকে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে। তাঁকে জনগণ পরিষদে অবরুদ্ধ করে রেখেছে। তিনি সার্বিক পরিস্থিতি মুঠোফোনে পুলিশকে জানিয়েছেন। কুমারখালী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) দীপংকর দাস বলেন, ঘটনাস্থলে পৌঁছানোর পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানা যাবে।

সর্বশেষ খবর