শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৫ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ জানুয়ারি, ২০১৯ ২৩:১৬

ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব

আজ আসরের ষষ্ঠ দিন

মোস্তফা মতিহার

আজ আসরের ষষ্ঠ দিন

দেশ-বিদেশের চলচ্চিত্রের সমাহারে ভিন্ন রূপ পেল রাজধানী ঢাকা। বিশে^র বিভিন্ন দেশের চলচ্চিত্রের সঙ্গে এদেশের চলচ্চিত্র ও নির্মাতাদের মেলবন্ধনে নিঃসন্দেহে এ এক অনন্য উদ্যোগ। আজ মঙ্গলবার নয়দিনের এই উৎসবের ষষ্ঠদিন। একযোগে জাতীয় জাদুঘরের প্রধান মিলনায়তন ও কবি সুফিয়া কামাল মিলনায়তন, যমুনা ব্লকবাস্টার সিনেমাস, কেন্দ্রীয় গণগ্রন্থাগারের শওকত ওসমান স্মৃতি মিলনায়তন, শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় চিত্রশালা মিলনায়তন ও অঁলিয়স ফ্রঁসেজ এই ছয়টি মিলনায়তনে প্রদর্শিত হচ্ছে উৎসবের ছবিগুলো। আজ মঙ্গলবার ষষ্ঠদিনে অঁলিয়স ফ্রঁসেজ মিলনায়তনে প্রদর্শিত হবে তুরস্কের নির্মাতা এইরবেক দেইরবেকের ছবি ‘দারাকিরি’ (দ্য সং অব দ্য ট্রি), কিরগিজস্তান কারদেসলার (ব্রাদার্স), দক্ষিণ কোরিয়ার নির্মাতা কিম জেই-হানের ‘সোলাজার মেমেনটোস, মঙ্গোলিয়ার ছবি ‘লাইফ’। শিল্পকলা একাডেমির চিত্রশালা মিলনায়তনে প্রদর্শিত হবে তিউনিশিয়ার ছবি ‘তিউনিশিয়া ফ্যাক্টরি’, ইরানের নির্মাতা বাহমান কামেয়ারের ছবি ‘দারভাজ-ই-হামেল’ (বিয়ারার), রোমানিয়ার ‘ক্যাপেস’, মরক্কোর ‘কিলিকিস দ্য টাউন অব আউলস’। জাতীয় জাদুঘরের প্রধান মিলনায়তনে প্রদর্শিত হবে বাংলাদেশের নির্মাতা নাজনীন হাসান চুমকির ছবি ‘মানুষ’, সার্বিয়ার ছবি ‘অপটিমিস্ট’, কাজাখস্তানের ছবি ‘শাইনাইরাও’ (ডিপ ওয়েল), চীনা ছবি ‘ক্রেজি ফিশেজ’, ভারতের জাহনু বড়ুয়ার ‘ভোগা খিড়িকি’ (ব্রোকেন উইনডো)। জাদুঘরের কবি সুফিয়া কামাল মিলনায়তনে প্রদর্শিত হবে তুরস্কের ছবি ‘হালেফ’, সিঙ্গাপুরের নির্মাতা শিল্পা কৃষ্ণান শুক্লার চলচ্চিত্র ‘তাসি’, ভারতের ছবি ‘বাঘিরা’, ইরানের আলী আসাদুল্লাহর ‘এখতেলাফ’ (ডিফেন্স), একই দেশের রেজা সোবহানির ‘ওয়ান কিলোগ্রাম বেইল মাগাস’, ‘আঘকান্দ’, ভারতের ছবি ‘আবা’, ‘থিংকিং অব হিম’, ইরানের ‘বুদ্ধস শেইম’, জাপানের তাকেশি কুসিদার ‘কোই’ (ভয়েস); জাপান, জার্মানি ও থাইল্যান্ডের যৌথ ছবি ‘ডেডিকেশন অব লাইফ’, কসোভোর ছবি ‘ইউরা’ (দ্য ব্রিজ), লেবানন, জার্মানি, স্পেন ও কাতারের যৌথ ছবি ‘টিশুইশ’ এবং পাবলিক লাইব্রেরির শওকত ওসমান স্মৃতি মিলনায়তনে প্রদর্শিত হবে তুরস্কের ছবি ‘বেইম কুচুক সোজলারিন’ (মাই শর্ট ওয়ার্ল্ড), মেসিডোনিয়া, সার্বিয়া, সলভেনিয়া, কসোভোর যৌথ ছবি ‘গডিনা না মাজমুনত’ (ইয়ার অব দ্য মানকি), ভারতের হরিশ ভায়াস নির্মিত ‘এংরেজি ম্যায় কেহতে হ্যায়’, বাংলাদেশের অনম বিশ^াসের ‘দেবী’, শ্রীলঙ্কার ছবি ‘পাংশু’। এর মধ্যে জাতীয় জাদুঘরের প্রধান মিলনায়তন ও কেন্দ্রীয় গণগ্রন্থাগারের শওকত ওসমান মিলনায়তনে সকাল ১০টা থেকে প্রদর্শিত হচ্ছে শিশুতোষ চলচ্চিত্র। এক্ষেত্রে শিশুদের সঙ্গে অভিভাবকরাও বিনামূল্যে চলচ্চিত্র উপভোগ করতে পারবে।

 


আপনার মন্তব্য