Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ৮ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ নভেম্বর, ২০১৯ ০১:৪৮

আদালতে সেই গৃহকর্মীর জবানবন্দি

নিজস্ব প্রতিবেদক

আদালতে সেই গৃহকর্মীর জবানবন্দি

রাজধানীর ধানমন্ডিতে ফ্ল্যাটে জোড়া খুনের ঘটনায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন সেই বাসার গৃহকর্মী সুরভী আক্তার নাহিদা। গতকাল ঢাকার মহানগর হাকিম সারাফুজ্জমান আনছারীর আদালতে ওই গৃহকর্মীর জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়। জবানবন্দি শেষে সুরভীকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে এসআই আশরাফ জানিয়েছেন।

আদালত সূত্র জানায়, জবানবন্দিতে সুরভী জানিয়েছেন, হত্যাকান্ডে  অন্য কারও সম্পৃক্ততা ছিল না। এর আগে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গত মঙ্গলবার তাকে পাঁচ দিনের রিমান্ডে নিয়েছিল পুলিশ। গত ১ নভেম্বর রাতে ধানমন্ডির ২৮ নম্বর (নতুন ১৫) রোডের এক ভবনের পঞ্চম তলা থেকে গার্মেন্ট প্রতিষ্ঠান টিমটেক্স গ্রুপের এমডি ও ক্রিয়েটিভ গ্রুপের ডিএমডি কাজী মনির উদ্দিন তারিমের শাশুড়ি আফরোজা বেগম (৬৫) এবং তার গৃহকর্মী দিতির (১৮) রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার করা হয়।

 আফরোজা ও গৃহকর্মী যে ফ্ল্যাটে থাকতেন তার উল্টো দিকের ফ্ল্যাট এবং তার ঠিক উপরে ছয় তলায় ফ্ল্যাট নিয়ে থাকেন আফরোজার মেয়ে দিলরুবা সুলতানা রুবা ও তার স্বামী কাজী মনির উদ্দিন তারিম। ওইদিন মনির উদ্দিন তারিম উপস্থিত সাংবাদিক ও পুলিশকে জানান, শুক্রবার তার শাশুড়ির বাসায় নতুন এক গৃহকর্মী কাজে এসেছিলেন। এলাকার এক পানের দোকানির মাধ্যমে নতুন ওই গৃহপরিচারিকার খোঁজ এনেছিল তাদের কর্মচারী আতিকুল হক বাচ্চু।

এ ঘটনার দুই দিন পর আগারগাঁও বস্তি থেকে সুরভীকে গ্রেফতারের পর পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়, বাসা থেকে বের হতে বাধা দেওয়ায় ওই গৃহকর্মী হত্যাকা  ঘটানোর কথা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন। এ মামলায় অপর আসামিরা হলেন- নুরুজ্জামান (দারোয়ান), গাওসুল আযম প্রিন্স (তত্ত্বাবধায়ক), আতিকুল হক বাচ্চু ও বেলায়েত হোসেন।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর