শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ২৩:৪২

মাঠে গরু বাজার তাই কলেজ ছুটি

মহিউদ্দিন মোল্লা, কুমিল্লা

মাঠে গরু বাজার তাই কলেজ ছুটি

কুমিল্লার চলন মহাবিদ্যালয়ের মাঠে প্রতি সোমবার বসে গরু বাজার। এই জন্য ওইদিন কলেজে অঘোষিত ছুটি থাকে। সোমবার কখনো এক-দুইটা ক্লাস হয়, কোনো দিন তা-ও হয় না। এছাড়া শিক্ষকরা সময় মতো কলেজে আসেন না। অধ্যক্ষ প্রায়ই অনুপস্থিত থাকেন। এমন নানা অনিয়মে চলন মহাবিদ্যালয়ের গতি স্থবির হয়ে পড়েছে বলে অভিযোগ অভিভাবক-শিক্ষার্থীদের। মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদফতর কুমিল্লা অঞ্চলের সহকারী পরিচালক আবুল খায়ের জানান, আমরা পরিদর্শনে গিয়ে অধ্যক্ষ ও কিছু শিক্ষককে অনুপস্থিত পেয়েছি। কলেজ মাঠে গরুর বাজারের বিষয়ে বলেন, ‘আমরা গুণগত শিক্ষার জন্য কাজ করছি। সেখানে মাঠে গরু বাজার এবং বাজারের জন্য কলেজ আগে ছুটি দিয়ে দেওয়া দুঃখজনক। এমপিওভুক্ত কলেজের সব সুবিধা সরকার দিচ্ছে, সেখানে মাঠে গরু বাজার দিয়ে আয় করা অযৌক্তিক।  অভিযোগ আছে, অধিকাংশ শিক্ষক সময়মতো কলেজে আসেন না। কয়েকজন আবার বেতনের কিছু অংশ অধ্যক্ষকে দিয়ে কলেজে অনুপস্থিত থাকছেন। নিয়োগ শিক্ষকদের বদলে পার্টটাইম শিক্ষক দিয়ে ক্লাস করানো হয়। অধ্যক্ষ নিজেও নিয়মিত কলেজে যান না। শিক্ষা প্রশাসনের নজরে কিছু অনিয়ম ধরা পড়ায় চাপে পড়ে অধ্যক্ষ এক শিক্ষককে শোকজ ও অন্যজনকে সাময়িক বহিষ্কার করেছেন। তারা আবার অধ্যক্ষসহ পরিচালনা কমিটির বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। কলেজ পরিচালনা কমিটির সভাপতি আনোয়ারুল্লাহ মজুমদার বলেন, ‘অধ্যক্ষ নিজেই কলেজে আসেন সাড়ে ১১টার পর। তা-ও প্রত্যেকদিন আসেন না। গরু বাজারের বিষয়ে বলেন, ‘বাজারের আয় দিয়ে কলেজ উন্নয়নের কাজ করেন। গরু বাজারের দিন ১২টার দিকে কলেজ ছুটি দেওয়া হয়।’ অধ্যক্ষ আলী হোসেন মজুমদার বলেন, ‘আগে কিছু অস্বচ্ছ নিয়োগ হয়েছে। সে সব শিক্ষকদের দিয়ে দায়িত্ব পালন করাতে সমস্যা হচ্ছে।’ তিনি বলেন, শিক্ষকদের কাছ থেকে টাকা নেওয়ার অভিযোগ সত্য নয়।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর