Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ১১ মে, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১০ মে, ২০১৯ ২১:৩৫

স্মার্টফোনে ইন্টারনেট খরচ কমানোর উপায়

ইন্টারনেট ছাড়া আজকাল যেখানে চলাই মুশকিল সেখানে মোবাইল ফোন বা স্মার্টফোনে ইন্টারনেটের খরচ বেশি হবে সেটাই স্বাভাবিক। তবে বিভিন্ন উপায় অবলম্বন করে স্মার্টফোন ইন্টারনেটের খরচ কমানো যায়। এমনই কয়েকটি উপায় নিয়ে আলোচনা করা হলো-

শনিবারের সকাল ডেস্ক

স্মার্টফোনে ইন্টারনেট খরচ কমানোর উপায়

ডাটা রেসট্রিকশন :

অনেকেই ফোনটি ব্যবহার না করা অবস্থায়ও ডাটা অন করে রাখছেন তখনো আপনার ডাটা খরচ হচ্ছে। অ্যানড্রয়েড ফোনের বেশির ভাগ অ্যাপসই সার্ভিস সচল রাখার জন্য ব্যাকগ্রাউন্ড ডাটা ব্যবহার করে। এর থেকে বাঁচতে আপনার সেটিংস অপশনে গিয়ে ডাটা ইউজেস তারপর রেসট্রিক্ট ব্যাকগ্রাউন্ড ডাটা অপশনে টিক দিয়ে দিন। ফলে অ্যাপগুলো আর ব্যাকগ্রাউন্ডে ডাটা চুরি করতে পারবে না।

 

প্রয়োজনীয় অ্যাপস চালু রাখুন :

স্মার্টফোন ইউজাররা ইন্টারনেটভিত্তিক কোনো একটি বা একাধিক ইনস্টেন্ট মেসেজিং অ্যাপ ব্যবহার করে থাকেন। এটি অনেক প্রয়োজনীয় বটে তাই এই রকম প্রয়োজনীয় কিছু অ্যাপ সব সময় চালু রাখা দরকার। যদি ব্যাকগ্রাউন্ড ডাটা বন্ধ করে রাখেন তবে সব অ্যাপ একত্রে ব্যাকগ্রাউন্ডে বন্ধ হয়ে থাকবে। তাই এক্ষেত্রে সেটিংসে গিয়ে ডাটা ইউজেসে গিয়ে দেখতে পাবেন সব অ্যাপ দেখাচ্ছে। কোন অ্যাপ কী পরিমাণ ডাটা খরচ করছে সেটাও আপনি দেখতে পারবেন। অ্যাপসগুলোতে ক্লিক করে সহজেই ভিতরে প্রবেশ করতে পারবেন। যে অ্যাপগুলো আপনার চালু রাখা দরকার সেগুলো বাদ দিয়ে বাকিগুলো রেসট্রিক্টেড করে  পারেন। এর মাধ্যমেও আপনার অনেট ডাটা বেঁচে যাবে।  

 

ডাটা সেভিংস অ্যাপ ব্যবহার :

কিছু কিছু অ্যাপস লো ডাটা খরচ করে। ফলে সহজেই ব্রাউজিংয়ের সুযোগ তৈরি হয়। এ রকম কিছু অ্যাপ হলো অপেরা মিনি, অপেরা নিউ, ইউসি ব্রাউজার। এই অ্যাপগুলোতে ডাটা সেভিংস মুড আছে। এই মুড ব্যবহার করে আপনি ৮০ শতাংশ পর্যন্ত ব্রাউজিং খরচ বাঁচাতে পারেন।

 

সিকিউরিটি অ্যাপ ব্যবহার :

বিভিন্ন সিকিউরিটি অ্যাপস ব্যবহার করেও আপনি ডাটা খরচ কমাতে পারেন। এই অ্যাপগুলোর দ্বারা আপনি জানতে পারবেন কোন অ্যাপগুলো আপনার ডাটা চুরি করছে।

 

ডাটা সেটিংস :

ওয়াইফাই-ভিত্তিক কিছু অ্যাপস যেমন শেয়ার ইট, হটস্পট ইত্যাদি ব্যবহারের সময় যেন অন্য কেই আপনার ডাটা ব্যবহারের সুযোগ না পায়।


আপনার মন্তব্য